৮ ম্যাচে ২২ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে বার্সেলোনা। রিয়াল সমান ম্যাচে সমান পয়েন্ট পেলেও গোল ব্যবধানে পিছিয়ে দুইয়ে। গোল ব্যবধানে বার্সার (১৯) চেয়ে পিছিয়ে রিয়াল (১২)। টানা ৬ দ্বৈরথে জয়খরা কাটিয়ে গত মৌসুমে রিয়ালের বিপক্ষে ৪-০ গোলে জিতেছিল কাতালান ক্লাবটি। তারপর এটাই প্রথম এল ক্লাসিকো।

গত আড়াই বছরের মধ্যে এই প্রথম লিগ টেবিলের শীর্ষে উঠেছে বার্সা। গত বছর জুনে কার্লো আনচেলত্তি রিয়ালের কোচ হয়ে আসার পর লিগে ঘরের মাঠে রিয়ালের খেলা ২৩ ম্যাচের মধ্যে মাত্র একটি হেরেছেন ইতালিয়ান এই কোচ। সেটি গত মৌসুমে মার্চে বার্সার কাছে সেই হার। ২০১৯ আর্নেস্তো ভালভের্দের পর রিয়ালের বিপক্ষে এই প্রথম টানা দুই ম্যাচে জয় তুলে নেওয়ার সুযোগ পাচ্ছে জাভি হার্নান্দেজের বার্সা।

মৌসুম শুরুর আগে দলবদলের বাজারে ১৫ কোটি ইউরো ঢেলে রবার্ট লেভানডফস্কি, জুলস কুন্দেদের নিয়ে এসে স্কোয়াড শক্তিশালি করা বার্সা এই ম্যাচে মোটেও পিছিয়ে নেই। যদিও চ্যাম্পিয়নস লিগ গ্রুপপর্ব থেকে বাদ পড়ার শঙ্কায় আছে জাভির দল।

লিগে ৮ ম্যাচে এ পর্যন্ত সর্বোচ্চ ২০ গোল করার পাশাপাশি মাত্র ১ গোল হজম (সবচেয়ে কম) করা বার্সা জয় ছাড়া আর কিছুই ভাববে না এই ম্যাচে। লা লিগা জয়ের মতো শক্তি বার্সার আছে কি না, সেটাও বোঝা যাবে এই ম্যাচে। অন্যদিকে লিগ শিরোপা ধরে রাখার মতো সামর্থ্য রিয়ালের আছে কি না, তাও এই ম্যাচে বুঝে নিতে পারবেন রিয়ালের কোচ কার্লো আনচেলত্তি।

পাঠক, কে জিতবে আজকের এল ক্লাসিকোয়? রিয়াল না বার্সা? ভোটে, আপনার মত দিন।