গ্যালারিতে উদ্বোধনী ম্যাচে দর্শক এসেছিলেন হাজারখানেক। তবে এরপর শুধু ভিআইপি গ্যালারি ভরা থাকে দর্শকে। কাল ম্যাচের পরে তুষির সঙ্গে ছবি তুলতে ব্যস্ত হয়ে পড়েন দর্শকদের অনেকে।

দেশে নতুন করে হকির উন্মাদনা জাগাতে চেষ্টা করছে বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন। মাঠে দর্শক ফেরাতে নানা রকমের উদ্যোগ নিচ্ছেন কর্মকর্তারা। ম্যাচের মাঝ বিরতিতে কখনো ব্যান্ড দল আনছে, কখনো দেখা যাচ্ছে চলচ্চিত্রের অভিনেতা–অভিনেত্রীদের। টেলিভিশনেও চলছে নানা রকমের প্রচারণা। সেই ধারাবাহিকতায় এবারের ফ্র্যাঞ্চাইজি হকি লিগের অন্যতম শুভেচ্ছাদূত তুষি এলেন মওলানা ভাসানী স্টেডিয়ামে।

প্রথমবার হকি মাঠে এসে রোমাঞ্চিত তুষি বলছিলেন, ‘ক্রিকেট, ফুটবল সবাই পছন্দ করে। তবে হকিটাও দেখতে অনেক মজা। এর আগে স্টেডিয়ামে এলেও কখনো মাঠে বসে খেলা দেখিনি। প্রথমবার মাঠে বসে হকি ম্যাচ দেখে খুবই ভালো লাগছে আমার।’

ম্যাচের বিরতিতে খুদে হকি খেলোয়াড়ের সঙ্গে হকিস্টিক ও বল নিয়ে খুনসুটিতে মেতে ওঠেন তুষি। একফাঁকে অটোগ্রাফ দেওয়া বল উপহার দেন ওই খেলোয়াড়কে। তুষি জানালেন, ছোটবেলায় ক্রিকেট ও বাস্কেটবল খেলতেন। হকি স্টেডিয়ামে এসে স্বাভাবিকভাবেই উচ্ছ্বসিত হয়ে ওঠেন তিনি, ‘আমার পরিবারের সবাই ক্রীড়াপ্রেমী। আমার মা ব্যাডমিন্টন খেলতেন। আমি নিজেও ছোটবেলায় খেলাধুলা করেছি। খেলাধুলার প্রতি তাই আলাদা একটা টান রয়েছে আমার।’

ভারতে আইপিএলে দল রয়েছে শাহরুখ খান, প্রীতি জিনতার। প্রো কাবাডিতে দল কিনেছেন অভিষেক বচ্চন। বাংলাদেশেও চলচ্চিত্র অঙ্গনের ব্যক্তিত্বরা এভাবে খেলাধুলার উন্নতিতে এগিয়ে আসতে পারেন বলে মনে হয়েছে তুষির, ‘ভারতে  আইপিএলে দল আছে শাহরুখ খানের। এটাকে আমি খুবই ইতিবাচকভাবে দেখি এবং এটাই হওয়া উচিত। হকি বা যেকোনো খেলা দিয়ে দিন শেষে যদি ব্যবসা করা যেতে পারে, কেন সেটা হবে না? আমাদের দেশের একজন হকি তারকা যদি বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গনে প্রতিষ্ঠিত হতে পারে, সেটা তো আমাদের জন্য অনেক গর্বের, সম্মানের।’  

ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগের আজকের ম্যাচে রূপায়ন সিটি কুমিল্লাকে ৪-৩ গোলে হারিয়েছে ওয়ালটন ঢাকা। জয়ী দলের আশরাফুল ইসলাম ও আফেন্দি আলী সূর্য করেছেন জোড়া গোল। রূপায়নের ২টি গোল করেছেন কিম সুং ইয়ুব। ১টি গোল করেছেন সোহানুর রহমান।
লিগে ঢাকার এটি প্রথম জয়। ৯টি পেনাল্টি কর্নার পেয়ে তা থেকে মাত্র ১টি গোল করতে পেরেছে কুমিল্লা।