আকিমুল্লাহর বয়স মাত্র ১৯ বছর। মালয়েশিয়া জাতীয় দলে এখনো সুযোগ মেলেনি। তবে এরই মধ্যে বয়সভিত্তিক দলে খেলেছেন। ২০১৮ সালে যুব অলিম্পিকে আর্জেন্টিনায় সোনা জেতে মালয়েশিয়া। ওই দলের গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড় ছিলেন আকিমুল্লাহ।

২০২০ সালে অলিম্পিক বাছাইয়ে খেলেছেন। এরপর ২০২১ সালে জুনিয়র বিশ্বকাপে খেলেছেন। সুলতান আজলান শাহ হকি টুর্নামেন্ট চলছে মালয়েশিয়ায়। সেখানে সুযোগ না পেয়ে এবার এসেছেন ঢাকায় খেলতে।

প্রথম ম্যাচেই সবটুকু আলো কাড়লেন তরুণ আকিমুল্লাহ। ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় হয়েছেন নিজেদের প্রথম ম্যাচে খেলতে নেমেই। ম্যাচসেরা হওয়ার পর আকিমুল্লাহ বলছিলেন, ‘ঢাকায় প্রথমবার খেলতে এসেছি, প্রথম দিনেই সেরা খেলোয়াড় হয়েছি। খুব খুশি আমি। তবে সবচেয়ে বেশি ভালো লেগেছে দলকে জেতাতে অবদান রেখেছি বলে। পরের ম্যাচগুলোতেও এভাবে ভালো খেলতে চাই।’

বরিশাল দলে রয়েছেন অভিজ্ঞ মামুনুর রহমান, রোমান সরকার, দ্বীন ইসলামদের মতো স্থানীয়রা। খেলছেন বিশ্বকাপে খেলা মালয়েশিয়ান ফিতরি সারি, কোরিয়ান ইউ সেং হো। এই ম্যাচ দিয়ে প্রায় চার বছর পর কোনো প্রতিযোগিতামূলক হকি লিগে খেলতে নামলেন জাতীয় দলের গোলরক্ষক অসীম গোপ। অনেক দিন পর মাঠে নামলেও ম্যাচে অসীমের পারফরম্যান্স ছিল দুর্দান্ত। শুরু থেকেই অবশ্য দাপটের সঙ্গেই খেলেছে বরিশাল।

প্রথম দুই কোয়ার্টারে যদিও কোনো দলই গোল পায়নি। তবে ৩২ মিনিটে বরিশালের দ্বীন ইসলামের গোলটি ছিল দর্শনীয়। বক্সের সামান্য বাইরে থেকে মামনুর রহমানের হিট স্টিকের আলতো টোকায় দিক পরিবর্তন করে বল জালে ঢোকালেন দ্বীন ইসলাম। এরপর ৩৭ মিনিটে রকিবুল হাসান সমতায় ফেরান ঢাকাকে (১-১)।  

পুরো ম্যাচে ৭টা পেনাল্টি কর্নার পেয়েছে ঢাকা। কিন্তু প্রতিবারই পেনাল্টি কর্নার স্পেশালিস্ট আশরাফুল ইসলাম হতাশ করেছেন। ম্যাচের ৫৮ মিনিট দুর্দান্ত এক আক্রমণ ছিল বরিশালের। বাঁ প্রান্ত দিয়ে বক্সে ঢোকা দ্বীন ইসলাম বলটি বাড়িয়ে দেন  আকিমুল্লাহর কাছে। দারুণ এক ফ্লিকে আকিমুল্লাহর হিট জালে জড়াতেই উল্লাসে মেতে ওঠে বরিশাল