ঘটনাটি স্কটল্যান্ডের এডিনবরায়। পিটার অ্যালান নামের একজন ওই বাড়ি মেরামতের কাজ করছিলেন। তিনিই মেঝে খুঁড়ে বোতলটি খুঁজে পান। তখনই তিনি তা বাড়ির মালিক এলিথ স্টিম্পসনকে জানান। পরে তিনি এসে বোতলটি ভেঙে চিঠি বের করে আনেন। তিনি ও তাঁর দুই সন্তান চিঠিটি পড়েন।

পিটার অ্যালান বলেন, ১৫০ বর্গফুটের ঘরটি মেরামত করার সময় তাঁরা জানতেন না এমন কিছু মেঝের নিচ থেকে বের হবে। তাই চিঠিসহ বোতলটি বের করার পর তিনি অবাক হয়ে যান। দ্রুত তিনি বাড়ির মালিককে ডেকে এনে সেটা দেখান।

বাড়ির মালিক স্টিম্পসনের দুই সন্তান। একজনের বয়স আট বছর। অন্যজনের ১০ বছর। মেঝে খুঁড়ে যখন বোতলটির সন্ধান পাওয়া যায় তখন তারা দুজনে বিদ্যালয়ে ছিল। শিশু দুটির বাড়ি ফেরা পর্যন্ত অপেক্ষা করেছিলেন তাদের মা স্টিম্পসন। পরে তিনজন মিলে বোতল ভেঙে চিঠিটি বের করে আনেন।

চিঠি খুলে দেখা যায়, সেটি ১৮৮৭ সালের ৬ অক্টোবর লেখা। জেমস রিচি ও জন গ্রিভি সেটি লিখেছিলেন। তাঁরা ওই বাড়ির মেঝে তৈরির কাজ করেছিলেন। তাঁরা মজা করার জন্য চিঠি লিখে বোতলে ভরে রেখেছিলেন, যাতে অনেক বছর পরে হলেও কেউ সেটা খুঁজে পেয়ে অবাক হয়ে যায়।