default-image

জর্ডানে হাসপাতালে ভর্তি করোনা রোগীদের জীবন বাঁচাতে প্রয়োজনীয় অক্সিজেন সরবরাহে ব্যর্থ হয় কর্তৃপক্ষ। এতে মারা যান অন্তত ছয়জন। এ ঘটনায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের পাশাপাশি ব্যর্থতার অভিযোগ ওঠে সরকারের বিরুদ্ধেও। অবশেষে অভিযোগ মাথায় নিয়ে পদত্যাগ করেছেন দেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী। ঘটনাটি মধ্যপ্রাচ্যের দেশ জর্ডানে। গতকাল (শনিবার) পদত্যাগ করেছেন দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাথির ওবেইদাত।

জর্ডানের গণমাধ্যমের বরাতে বিবিসি জানিয়েছে, রাজধানী আম্মান থেকে ২৩ কিলোমিটার দূরের সল্ট শহরে সরকারি হাসপাতালে গতকাল এক দিনে ওই ছয়জনের মৃত্যু হয়। হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে ভর্তি রোগীদের প্রয়োজনীয় অক্সিজেন সরবরাহে ব্যর্থ হয় কর্তৃপক্ষ। এ সময় করোনা ওয়ার্ড ছাড়াও হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যাকেন্দ্র ও প্রসূতি ইউনিটে অন্তত এক ঘণ্টা অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ ছিল।

বিজ্ঞাপন

এ ঘটনায় হাসপাতালটির করোনা ওয়ার্ডে মারা যান অন্তত ছয়জন। তবে অক্সিজেন–সংকটে হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যাকেন্দ্র ও প্রসূতি ইউনিটে কেউ মারা যাননি।
দেশটির গণমাধ্যমে এ খবর প্রচারিত হলে তুমুল সমালোচনা ছড়িয়ে পড়ে। হাসপাতাল প্রাঙ্গণে বিক্ষোভ করেন মৃতদের স্বজনেরা। দাবি ওঠে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পদত্যাগের। ওই ঘটনার পর জর্ডানের বাদশা আবদুল্লাহ হাসপাতালটি পরিদর্শন করেন।

প্রধানমন্ত্রী বশির আল-খাসাওনেহ ঘটনা তদন্তের নির্দেশ দেন। তাঁর নির্দেশে গতকালই পদত্যাগ করেছেন দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাথির। জর্ডানের গণমাধ্যম জানিয়েছে, অক্সিজেন–সংকটে রোগীর মৃত্যুর ঘটনায় ‘নৈতিক দায়িত্ববোধের’ জায়গা থেকে পদত্যাগ করেছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

জর্ডানে এখন পর্যন্ত ৩ লাখ ৮৫ হাজার ৫৩৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে দেশটিতে মারা গেছেন ৫ হাজার ২২৪ জন। গত বৃহস্পতিবার দেশটিতে এক দিনে ৮ হাজার ৩০০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। মহামারি শুরুর পর এটাই জর্ডানে এক দিনে সবচেয়ে বেশি করোনা শনাক্তের রেকর্ড।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন