যুক্তরাষ্ট্রের ছয় সদস্যের প্রতিনিধিদলে ছিলেন রিপাবলিকান দলের সিনেটর লিন্ডসে গ্রাহাম ও ডেমোক্রেট দলের সিনেটর বব মেনেনডেজ। গতকাল শুক্রবার সকালে তাইওয়ানের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে বৈঠক করেন তাঁরা। এ সময় তাঁদের স্বাগত জানান প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন।

সেদিনই রাজধানী তাইপেতে একটি সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ওই প্রতিনিধিদলের সদস্যরা। একই সময়ে একটি বিবৃতি প্রকাশ করে চীনা সেনাবাহিনী। সেখানে বলা হয়, পূর্ব চীন সাগরে ও তাইওয়ানের আশপাশের এলাকায় ফ্রিগেট যুদ্ধজাহাজ, বোমারু বিমান ও যুদ্ধবিমান পাঠানো হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধিদলের তাইওয়ান সফরের কথা উল্লেখ না করে বিবৃতিতে বলা হয়, তাইওয়ান ইস্যু নিয়ে সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের একের পর এক ভুল সংকেতের জবাবে এই মহড়া চালানো হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষতিকর কর্মকাণ্ড ও কৌশলগুলো পুরোপুরি ব্যর্থ ও খুবই বিপজ্জনক। যারা আগুন নিয়ে খেলে, তারা আগুনেই পুড়বে।

তাইওয়ানের যুক্তরাষ্ট্রের আইনপ্রণেতাদের সফরকে ‘উসকানিমূলক’ আখ্যা দিয়ে চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের আলাদা একটি বিবৃতিতে বলা হয়, এ ধরনের পদক্ষেপ তাইওয়ান প্রণালিতে উত্তেজনা আরও বাড়ানোর পথ তৈরি করছে।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন