বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বিবৃতিতে বালখি আরও বলেন, আফগানিস্তান আশা করছে, যুক্তরাষ্ট্রসহ সব দেশ ও আন্তর্জাতিক সংস্থা আফগান সরকারের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন ও অব্যাহত রাখবে। এ ছাড়া আফগান জনগণের জন্য মানবিক সহায়তা চালিয়ে যাবে।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার আফগানিস্তানের তালেবান সরকারের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আমির খান মুত্তাকি বলেন, আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সঙ্গে বিশেষ করে প্রতিবেশী ও আঞ্চলিক দেশগুলোর সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক চায় তালেবান।

গত শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে দেশটির সরকার ও বেসরকারি সংস্থাগুলোকে এবং নির্দিষ্ট কিছু আন্তর্জাতিক সংস্থাকে আফগানিস্তানের লেনদেনের অনুমতি দিয়েছে।

এ মাসের শুরুতে জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস সতর্ক করে বলেছিলেন, দেশটিতে জরুরি মানবিক সাহায্য দেওয়া না হলে আফগানিস্তানের অর্থনীতি পুরোপুরি ভেঙে পড়তে পারে। যেসব দেশ আফগানিস্তানে ১২০ কোটি মার্কিন ডলার ত্রাণ সহায়তা দিতে চেয়েছে, তারা যেন দ্রুত ব্যবস্থা নেয়, তারও অনুরোধ করেন তিনি।

তালেবান কর্তৃপক্ষ প্রতিশ্রুতি দিয়েছে, তারা যে সহায়তা পাবে, তা পুরোপুরি স্বচ্ছভাবে দরিদ্রদের কাছে পৌঁছানো হবে।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন