দোতি জেলা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত প্রধান ভোলা ভাট্টা বলেন, নিহত ছয়জনের মধ্যে শিশু চারটি। এর মধ্যে ৮ বছর বয়সী একটি ছেলে এবং ১৩ বছর বয়সী একটি ও ১৪ বছর বয়সী দুটি মেয়েশিশু রয়েছে। নিহত অপর দুজনের মধ্যে রয়েছেন ৪০ বছর বয়সী এক নারী ও ৫০ বছর বয়সী এক পুরুষ।

পুলিশ কর্মকর্তা ভাট্টা বলেন, ভূমিকম্পে বিধ্বস্ত ঘরবাড়ির ধ্বংসাবশেষের আঘাতে এই ছয়জনের মৃত্যু হয়। জেলায় যে পাঁচজন আহত হয়েছেন, তাঁদের স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডুতেও মৃদু ভূকম্পন অনুভূত হয়েছে। তবে সেখানে ক্ষয়ক্ষতির কোনো খবর তাৎক্ষণিকভাবে পাওয়া যায়নি।

এ ছাড়া ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লিসহ দেশটির কিছু এলাকায় ভূকম্পন অনুভূত হয়েছে।