default-image

মানুষের জন্য করোনাভাইরাসের টিকা আগেই আবিষ্কার করেছে রাশিয়া। এবার দেশটি প্রাণিদেহে ব্যবহারের জন্য করোনার টিকা নিয়ে এসেছে। প্রাণীর জন্য বিশ্বের প্রথম করোনার টিকা হিসেবে এ টিকার নিবন্ধন দিয়েছে দেশটি।

রাশিয়ার কৃষি ও পশুপালন খাতের পর্যবেক্ষক সংস্থা রোসেলখোদনাজর আজ বুধবার এ তথ্য জানিয়েছে। দেশটির কেন্দ্রীয় এ সংস্থার একটি ইউনিট ‘কারনিভ্যাক-কোভ’ নামের টিকাটি উদ্ভাবনের সঙ্গে যুক্ত ছিল। সংস্থার উপপ্রধান কনস্তানতিন সাভেনকভ জানিয়েছেন, গত অক্টোবরে কারনিভ্যাক-কোভ টিকার পরীক্ষামূলক ব্যবহার শুরু হয়েছিল। এ সময় কুকুর, শিয়াল, বিড়াল, মিঙ্ক, আর্কটিক অঞ্চলের শিয়ালসহ অন্যান্য প্রাণীর ওপর পরীক্ষা চালিয়ে সফলতা মিলেছে।

কনস্তানতিন সাভেনকভ বলেন, পরীক্ষামূলক ব্যবহারে দেখা গেছে, এ টিকা প্রাণীদের ব্যবহারের জন্য পুরোপুরি নিরাপদ। এটি প্রাণিদেহে শতভাগ অ্যান্টিবডি তৈরিতে সক্ষম। টিকা দেওয়ার ছয় মাস পর্যন্ত এটি প্রাণীকে করোনা থেকে সুরক্ষা দিতে পারে। তবে গবেষকেরা এ বিষয়ে আরও বিশ্লেষণ চালিয়ে যাচ্ছেন।

বিজ্ঞাপন

এপ্রিলের শুরুতে কারনিভ্যাক-কোভ টিকার বাণিজ্যিক উৎপাদন শুরু করবে রাশিয়া, জানিয়েছেন কনস্তানতিন সাভেনকভ।

করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে চলমান লড়াইয়ে এর আগে তিনটি টিকা উদ্ভাবন করেছে রাশিয়া। তিনটি টিকাই মানুষের শরীরে ব্যবহারের জন্য। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি আলোচনা হচ্ছে রাশিয়ার স্পুতনিক-ভি টিকা নিয়ে। এ ছাড়া জরুরি ব্যবহারের জন্য এপিভ্যাককরোনা ও কোভিভ্যাক নামের আরও দুটি টিকা ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে মস্কো।

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন