টাইমস রেডিওকে ডানলান বলেন, ‘প্রায় আড়াই লাখের কোঠা আমরা স্পর্শ করেছি। আমরা চূড়ান্ত সংখ্যা বের করার কাজ করছি। যথাসময়ে এ সংখ্যা প্রকাশ করা হবে।’

৮ সেপ্টেম্বর স্কটল্যান্ডের বালমোরাল প্রাসাদে মারা যান রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ। তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৬ বছর। বালমোরাল প্রাসাদ থেকে রানির কফিন ছোট ছোট গ্রাম ও শহর পাড়ি দিয়ে এডিনবরায় পৌঁছায়। সেখান থেকে হোলিরুডহাউস প্রাসাদের সিংহাসনকক্ষে কফিনটি রাখা হয়। পরে তাঁর কফিন এনে সাধারণ দর্শনার্থীদের জন্য চার দিন ওয়েস্টমিনস্টার হলে রাখা হয়। এরপর রানিকে শ্রদ্ধা জানাতে সাধারণ মানুষের ঢল নামে। সারিবদ্ধ হয়ে মানুষকে ওয়েস্টমিনস্টার হলমুখী হতে দেখা যায়।

এই সারি টেমস নদী পর্যন্ত কয়েক কিলোমিটার পর্যন্ত ছাড়িয়ে যায়। মানুষকে অপেক্ষা করতে হয় ঘণ্টার পর ঘণ্টা। একপর্যায়ে লোকজনকে আর অপেক্ষা না করার অনুরোধ করা হয়। সোমবার শেষকৃত্যের দিন সকালে সাধারণ দর্শনার্থীদের জন্য ওয়েস্টমিনস্টার অ্যাবের দরজা বন্ধ হয়ে যায়।

এর আগে শিশু থেকে শুরু করে বিভিন্ন বয়সের মানুষ তাঁকে শ্রদ্ধা জানাতে ছুটে আসে। এর আগে ১৯৬৫ সালে উইনস্টন চার্চিলের মৃত্যুতে মানুষ শ্রদ্ধা জানাতে এসেছিল। হাউস অব কমন্সের তথ্য অনুযায়ী, ওই সময় ওয়েস্টমিনস্টার হলে ৩ লাখ ২১ হাজার ৩৬০ জন শ্রদ্ধা জানাতে এসেছিল।

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন