বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গবেষণায় বলা হয়েছে, করোনা টিকার পূর্ণ ডোজ নেওয়া থাকলে ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হওয়ার পর শারীরিক জটিলতা অনেকাংশে কম হয়। তবে এরপরও সংক্রমণের ঊর্ধ্বগতি দেখা গেছে। এমনকি মারাত্মক স্বাস্থ্যঝুঁকিতে থাকা লোকজনের মধ্যেও করোনা ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকি থেকেই যাচ্ছে।

গবেষকেরা বলছেন, করোনা টিকার দুটি ডোজ নেওয়া লোকজন থেকেও ভাইরাসটি ছড়ানোর বড় সম্ভাবনা আছে বলে দেখা গেছে। করোনা ছড়াতে পারে পূর্ণ ডোজ টিকা নেওয়া ব্যক্তিদের মধ্যেও। তাই দেশের বাসিন্দাদের একটি বড় অংশের টিকা নেওয়া থাকলেও পাশাপাশি সংক্রমণ রোধে চলমান বিধিনিষেধের ওপর জোর দিতে হবে।

ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় আজ বুধবার এক টুইট বার্তায় জানিয়েছে, ভারতে এখন পর্যন্ত মোট ১১৮ কোটি ৪৪ লাখ ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে শেষ ২৪ ঘণ্টায় টিকা পেয়েছেন ৭৬ লাখ ৫৮ হাজারের বেশি মানুষ।

এদিকে করোনা সংক্রমণের হালনাগাদ তথ্য প্রকাশকারী ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস বলছে, করোনা শনাক্তের পর ভারতে ৩ কোটি ৪৫ লাখ ৩৫ হাজার ৭৬৩ জন আক্রান্ত হয়েছেন। ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৬৬ হাজার ৫৮৪ জনের।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন