default-image

ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বলেছেন, এবার আর এই বাংলায় গুন্ডা দিয়ে ভোট করা যাবে না। মানুষ প্রস্তুত এই বাংলা থেকে মমতা দিদিকে হটানোর। এবার দুই শতাধিক আসন পেয়ে এই বাংলায় ক্ষমতায় আসবে বিজেপি। তারপর এই বাংলাকে সোনার বাংলায় রূপ দেবে বিজেপি। একদিকে কেন্দ্রে মোদি, অন্যদিকে এই রাজ্যে বিজেপি সরকার। এই ডাবল ইঞ্জিন সরকারই এবার একযোগে বাংলাকে সোনার বাংলায় রূপ দেবে।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে অমিত শাহ কোচবিহারে রাসলীলা ময়দানে এক জনসভায় এসব কথা বলেন। তিনি কোচবিহারে এসেই ঐতিহাসিক মদনমোহন মন্দিরে যান। সেখানে পূজা দিয়ে চলে আসেন রাসলীলা ময়দানে। এখানে জনসভা সেরে তিনি উদ্বোধন করেন চতুর্থ পরিবর্তনযাত্রার।

পশ্চিমবঙ্গের আসন্ন রাজ্য বিধানসভার নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রচারের লক্ষ্যে ৬ ফেব্রুয়ারি বিজেপি শুরু করেছে এই রাজ্যে পরিবর্তনযাত্রা। রাজ্যের পাঁচ প্রান্ত থেকে চলবে এই পরিবর্তনযাত্রা। ইতিমধ্যে তিনটি পরিবর্তনযাত্রা শুরুও হয়েছে। ৬ ফেব্রুয়ারি প্রথম পরিবর্তনযাত্রা শুরু হয় নদীয়ার নবদ্বীপ থেকে। ৯ ফেব্রুয়ারি দ্বিতীয় ও তৃতীয় পরিবর্তনযাত্রা শুরু হয় বীরভূমের তারাপীঠ এবং ঝাড়গ্রামের লালগড় থেকে। এ তিন পরিবর্তনযাত্রার সূচনা করেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডা।

বিজ্ঞাপন

জনসভায় অমিত শাহ বলেন, এই কোচবিহারের রাজবংশীদের যথার্থ সম্মান দেননি দিদি। এবার বাংলায় বিজেপি ক্ষমতায় এলে রাজবংশীদের যথার্থ সম্মান দেবে। গড়া হবে ২৫০ কোটি রুপি ব্যয়ে রাজবংশীদের সংস্কৃতিকেন্দ্র। তিনি আরও বলেছেন, এই অঞ্চলকে বিশেষ পর্যটনকেন্দ্র হিসেবে গড়ে তোলা হবে।

মানুষ তৃণমূলকে পরিত্যাগ করেছে উল্লেখ করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেছেন, এত দিন এই বাংলা শাসন করেছে কংগ্রেস, বাম দল ও তৃণমূল কংগ্রেস। এবার সময় এসেছে এই বাংলায় বিজেপির সরকার গড়ার। মানুষ তৃণমূলকে পরিত্যাগ করেছে। কাছে টেনে নিয়েছে বিজেপিকে। তিনি বলেন, মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে ব্যর্থ হয়েছেন দিদি। তাঁর আমলে ১৩০ জন বিজেপিকর্মী এই বাংলায় খুন হয়েছেন। এই দিদি শুধু ভাইপোর স্বার্থের কথা ভাবেন। ভাবেন তাঁকে এই বাংলার মুখ্যমন্ত্রী করার কথা।

কিন্তু বাংলার মানুষ আর দিদি-ভাইপোকে চাইছে না। তিনি তো একটি বিশেষ সম্প্রদায়ের স্বার্থের কথা ভাবেন। তাই এবারে এই বাংলার নির্বাচন হবে এক ঐতিহাসিক নির্বাচন। এই নির্বাচনে বিজেপি জয়ী হয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে সঙ্গে নিয়ে এই বাংলায় ডাবল ইঞ্জিন সরকার চালাবে।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন