default-image

করোনাভাইরাসের নতুন দুটি ধরন শনাক্ত হওয়ায় ভারতে নতুন ভ্রমণ নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকা ও ব্রাজিলের ছড়ানো করোনাভাইরাসের ধরন দুটি ভারতে শনাক্ত হয়। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সূত্র বলছে, ভারতে নতুন ভ্রমণ নির্দেশনা যুক্তরাজ্য, ইউরোপ ও মধ্যপ্রাচ্য বাদে সব আন্তর্জাতিক যাত্রীর জন্য প্রযোজ্য হবে। ভারতের এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

নতুন নির্দেশনা অনুযায়ী, উড়োজাহাজে যাত্রা শুরুর ৭২ ঘণ্টার মধ্যে আরটি-পিসিআর পরীক্ষায় করোনা নেগেটিভ হতে হবে। তবে পরিবারের কারও মৃত্যুর কারণ হলে সেটি ব্যতিক্রম হবে। যুক্তরাজ্য, ইউরোপ ও মধ্যপ্রাচ্যের যাত্রীদের পৌঁছানোর পর নিজ খরচে করোনা পরীক্ষা করাতে হবে। কোনো যাত্রীর করোনা শনাক্ত হলে তাঁর ক্ষেত্রে ভাইরাসের ধরনটি চিহ্নিত করা হবে এবং ভিন্ন নিয়ম অনুসরণ করা হবে।

বিজ্ঞাপন

ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে টুইট করে বলা হয়েছে, ‘যাত্রীদের মনোযোগ আকর্ষণ করছি। ভারতে আগত আন্তর্জাতিক ভ্রমণকারীর সবাইকে ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মানার বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে। ব্যতিক্রম হচ্ছে যুক্তরাজ্য, ইউরোপ ও মধ্যপ্রাচ্য।’

ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব মেডিকেল রিসার্চ (আইসিএমআর) সূত্র বলছে, ভারতে চারজনের মধ্যে দক্ষিণ আফ্রিকার করোনভাইরাসের ধরনটি এবং একজনের মধ্যে ব্রাজিলের করোনাভাইরাসের নতুন ধরনটি শনাক্ত করা হয়েছে। যুক্তরাজ্যের করোনাভাইরাসের ধরনটি শনাক্ত হয়েছে ১৮৭ জনের ক্ষেত্রে।

আইসিএমআরের মহাপরিচালক বলরাম ভার্গব বলেছেন, বর্তমান টিকাগুলো যুক্তরাজ্যের করোনাভাইরাসের নতুন ধরনটিকে নিষ্ক্রয় করার সম্ভাবনা দেখিয়েছে। দক্ষিণ আফ্রিকা ও ব্রাজিলের ধরনটির ক্ষেত্রে এগুলো কার্যকর কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন