বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গত ৬, ৭, ৮, ১১, ১৭ ও ১৯ সেপ্টেম্বর করোনায় মৃত্যুহীন দিন দেখেছিল কলকাতা। অক্টোবরে করোনায় মৃত্যুহীন দিন না দেখলেও দৈনিক এক থেকে সর্বোচ্চ তিনজনের মৃত্যু হচ্ছে। কলকাতাসহ গোটা পশ্চিমবঙ্গে এখন করোনার সংক্রমণ অনেকটা কমে এসেছে।

রাজ্যের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় প্রকাশিত হালনাগাদ তথ্যে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় ৭০১ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে, মারা গেছেন ১০ জন। দৈনিক মৃত্যুহার কমে ১ দশমিক ২০ এবং সংক্রমণের হার ছিল ২ দশমিক ১১।
এ ছাড়া একই সময় ৩৬ হাজার ১৭ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। করোনার প্রাদুর্ভাব শুরুর পর এখন পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১ কোটি ৮২ লাখ ৮৯ হাজার ৮৭৬ জনের। এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় ২ লাখ ৯৪ হাজার ২২৩ জনকে টিকা দেওয়া হয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় কলকাতায় ১৪৫, উত্তর চব্বিশ পরগনায় ১১৬, নদীয়ায় ৫৮, দক্ষিণ চব্বিশ পরগনায় ৫৩, হুগলিতে ৫২ ও হাওড়ায় নতুন করে ৫০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

পাশাপাশি গতকাল কলকাতায় দুজন, উত্তর চব্বিশ পরগনায় তিনজন, দক্ষিণ চব্বিশ পরগনায় দুজন এবং নদীয়া, পূর্ব বর্ধমান ও হুগলিতে করোনায় একজন করে মারা গেছেন। গতকাল পশ্চিমবঙ্গের ২৩টি জেলার মধ্যে ১৭টিতে করোনায় সংক্রমিত কারও মৃত্যু হয়নি।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, সবশেষ ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনামুক্ত হন ৫৭২ জন, এখনো চিকিৎসাধীন ৭ হাজার ৬০৪ জন। সব মিলিয়ে পশ্চিমবঙ্গে এখন পর্যন্ত ১৫ লাখ ৭১ হাজার ৮৪১ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে, মৃত্যু হয়েছে ১৮ হাজার ৮৩৭ জনের।
এদিকে ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মাণ্ডবীয় গতকাল সন্ধ্যায় এক টুইট বার্তায় জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে নতুন করে ২০ হাজার ৭৯৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। করোনা থেকে সেরে উঠেছেন ২৬ হাজার ৭১৮ জন, মৃত্যু হয়েছে ১৮০ জনের।

তাঁর দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, ভারতে এখন পর্যন্ত করোনার টিকা দেওয়া হয়েছে ৯১ কোটি ২২ লাখ ৬৬ হাজার ৬৬৭ জনকে। এর মধ্যে প্রথম ডোজ পেয়েছেন ৬৬ কোটি ২২ লাখ ৬৬ হাজার ৬৬৭ জন। আর দুই ডোজ পেয়েছেন ২৪ কোটি ৮৮ লাখ ১৩ হাজার ৬৬২ জন।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন