গতকাল দিল্লিতে ৩৫ বছরের এক বিদেশি নাগরিকের মাঙ্কিপক্স শনাক্ত হয়। তাঁর সম্প্রতি ভ্রমণের কোনো অভিজ্ঞতা ছিল না। ওই ব্যক্তিকে সরকার পরিচালিত এলএনজিপি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল বেসরকারি তিনটি হাসপাতালে মাঙ্কিপক্সে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার জন্য আইসোলেশন ওয়ার্ড তৈরির পরামর্শ দেন।

স্থানীয় সময় গত সোমবার দিল্লিতে প্রথমবার মাঙ্কিপক্সে আক্রান্ত এক রোগীকে এলএনজেপি হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, মাঙ্কিপক্স সংক্রামক রোগ। এটি প্রাণী থেকে মানুষে সংক্রমিত হয়। মাঙ্কিপক্সের উপসর্গ অনেকটা জলবসন্তের মতো। তবে মাঙ্কিপক্স রোগ হিসেবে কম গুরুতর।

মাঙ্কিপক্স রোগে জ্বর, শরীরে ক্ষত এবং লিম্ফ নোডগুলো ফুলে যায়। এতে জটিলতা দেখা দেয়। মাঙ্কিপক্সে আক্রান্ত হলে সুস্থ হতে দুই থেকে চার সপ্তাহ সময় লাগে।
ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় গতকাল সংক্রমিত ব্যক্তিকে আইসোলেশনে রাখতে পরামর্শ দিয়েছে। করোনার সংক্রমণ রোধে হাত, ধোয়া, মাস্ক পরা ও স্যানিটাইজার ব্যবহারও মাঙ্কিপক্স প্রতিরোধ করতে পারে।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন