default-image

বিশ্বের বৃহত্তম রেইন ফরেস্ট আমাজনের উজাড় ঠেকাতে আরও পাঁচ মাস সেনা মোতায়েন রাখবে ব্রাজিল।

দেশটির ভাইস প্রেসিডেন্ট হ্যামিল্টন মউরো গতকাল সোমবার এ কথা জানিয়েছেন। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞাপন

ব্রাজিলের ভাইস প্রেসিডেন্ট জানান, আমাজনে আগামী নভেম্বর পর্যন্ত সেনা মোতায়েন রাখার কথা ছিল। কিন্তু এখন সেই সময় বাড়িয়ে ২০২১ সালের এপ্রিল করা হবে।

হ্যামিল্টন মউরো সাংবাদিকদের বলেন, আগামী সপ্তাহ নাগাদ প্রেসিডেন্ট জইর বলসোনারো একটি ডিক্রিতে সই করবেন, যাতে বিশ্বের বৃহত্তম রেইন ফরেস্ট রক্ষায় সেনা মোতায়েনের সময় বাড়বে।

আমাজনকে ‘পৃথিবীর ফুসফুস’ বলা হয়। এই বন প্রচুর পরিমাণে গ্রিনহাউস গ্যাস শোষণ করে জলবায়ু পরিবর্তন রোধে কাজ করে।

চলতি বছরের মে মাসে প্রেসিডেন্ট বলসোনারো আমাজন রক্ষায় সেনা মোতায়েন করেন। তার আগে ২০১৯ সালে আমাজনে আগুন ছড়িয়ে পড়লে সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছিল। ওই ঘটনায় আন্তর্জাতিক মহলে তীব্র সমালোচনার মুখে পড়ে ব্রাজিল। বিশ্বের বৃহত্তম এই রেইন ফরেস্ট রক্ষায় ব্রাজিলের আরও ভূমিকা রাখার জন্য আহ্বান জানান বিশ্বনেতারা।

আন্তর্জাতিক চাপের কারণে চলতি বছর আগেভাগেই আমাজনে সেনা মোতায়েন শুরু হয়। আর তা বেশি সময় ধরে স্থায়ী থাকছে।

২০১৯ সালের জানুয়ারিতে বলসোনারো ক্ষমতায় আসার পর ব্রাজিলে বন ধ্বংস ও বনে আগুন বেড়েছে বলে সমালোচনা আছে।

ব্রাজিল সরকারের তথ্যমতে, ১৪ মাস ধরে বাড়লেও গত জুলাই-সেপ্টেম্বরে বন উজাড় কমে এসেছে।

তবে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, ব্রাজিলে বন উজাড়ের পরিমাণ এখনো অনেক বেশি। আর গত ১০ বছরের মধ্যে দেশটির বনভূমিতে আগুন লাগার হার এখন সর্বোচ্চ।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0