গত মাসের এক জরিপে বলসোনারোর প্রতি ২৮ শতাংশ ভোটারের সমর্থন থাকলেও সর্বশেষ জরিপে তাঁর প্রতি ভোটারদের সমর্থন ১ শতাংশ বেড়েছে। অন্যদিকে লুলা ডা সিলভার সমর্থন অপরিবর্তিত রয়েছে। দেশটিতে আগামী ২ অক্টোবর প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

ডেটাফোলহার প্রতিবেদনে বলা হয়, এখন ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হলে লুলা ৫৩ শতাংশ ভোট পেয়ে সরাসরি জয়লাভ করবেন। সেই ক্ষেত্রে দ্বিতীয় দফা বা রানঅফ নির্বাচনের আর দরকার হবে না। দেশটির সংবিধান অনুযায়ী, কোনো প্রার্থী ৫০ শতাংশ বা তার বেশি ভোট পেলে তিনি সরাসরি প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন। তবে কোনো প্রার্থী ওই ম্যাজিক ফিগারে পৌঁছাতে না পারলে দ্বিতীয় দফায় আবার ভোট গ্রহণের আয়োজন করা হয়।

জরিপে দেখা গেছে, ৩০ অক্টোবর দ্বিতীয় রাউন্ডের ভোট অনুষ্ঠিত হলে লুলা ৫৫ শতাংশ ভোট পেয়ে জয়ী হবেন। বলসোনারো পাবেন ৩৫ শতাংশ ভোট।

লুলা ২০০৩ থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত দুই মেয়াদে ব্রাজিলে ক্ষমতায় ছিলেন। তাঁর শাসনামলে ব্রাজিলের দ্রুত উন্নতি হয়। তাঁর প্রশাসন লাখ লাখ দরিদ্র মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করেছিল। ব্যাপক জনপ্রিয়তা নিয়েই লুলা ক্ষমতা ছাড়েন। তবে ক্ষমতা ছাড়ার পর দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত হয়ে ২০১৮ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত ৫৮০ দিন কারাভোগ করেন লুলা। পরে তাঁর বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ বাতিল করা হয়েছিল। ৭৬ বছর বয়সী এই নেতা নির্বাচিত হলে তা বিস্ময়কর প্রত্যাবর্তনের উদাহরণ হয়ে থাকবে।

লাতিন আমেরিকা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন