default-image

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ার পর আগামী শুক্রবার অস্ট্রেলিয়া, জাপান ও ভারতের নেতাদের সঙ্গে প্রথমবারের মতো যৌথ আলোচনায় বসছেন জো বাইডেন। চীনের ক্রমবর্ধমান আধিপত্য বিস্তারের মোকাবিলায় গঠিত নতুন জোটকে আরও গতিশীল করাই হবে তাঁর এ আলোচনার লক্ষ্য। খবর এএফপির।

করোনাকালে প্রেসিডেন্ট বাইডেন যেসব ভার্চ্যুয়াল শীর্ষ বৈঠকে অংশ নেবেন, চারদেশীয় এই আলোচনা হবে তার অন্যতম। সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রশাসনের অধীন বিভিন্ন দেশের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্কে যে বিশৃঙ্খলা দেখা দেয়, তার প্রেক্ষাপটে মার্কিন নেতৃত্বাধীন জোটগুলোকে পুনরুজ্জীবিত করার অঙ্গীকার করেছিলেন বাইডেন।

চীনের সঙ্গে উত্তেজনাকর সম্পর্ক বেড়ে যাওয়ার মধ্যে ‘কোয়াড’ (চতুষ্টয়) নামে পরিচিত মার্কিন ওই জোটের এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। বিশ্বে বাণিজ্য ও নিরাপত্তা খাতে চীন ক্রমে তার প্রভাব বাড়িয়ে চলেছে বলে মনে করা হয়ে থাকে।

হোয়াইট হাউসের প্রেস সেক্রেটারি জেন সাকি গতকাল মঙ্গলবার সাংবাদিকদের বলেন, ‘মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে ক্ষমতা গ্রহণের পর স্বল্পতম সময়ে বাইডেনের প্রতিষ্ঠিত বহুপক্ষীয় যোগাযোগগুলোর অন্যতম হবে ওই বৈঠকটি। ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে আমাদের মিত্রদেশ ও অংশীদারদের সঙ্গে আমরা ঘনিষ্ঠ সহযোগিতার সম্পর্ক গড়ে তুলছি—এটি সে বার্তাই তুলে ধরছে।’

বিজ্ঞাপন

চীনের সঙ্গে উত্তেজনাকর সম্পর্ক বেড়ে যাওয়ার মধ্যে ‘কোয়াড’ (চতুষ্টয়) নামে পরিচিত মার্কিন ওই জোটের এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। বিশ্বে বাণিজ্য ও নিরাপত্তা খাতে চীন ক্রমে তার প্রভাব বাড়িয়ে চলেছে বলে মনে করা হয়ে থাকে।

শীর্ষ বৈঠককে সামনে রেখে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন সাংবাদিকদের বলেন, ‘বাইডেন একে (জোটের সম্পর্ক) আরেক মাত্রায় নিয়ে যাচ্ছেন। আমাদের এ অঞ্চলের জন্য এটি হবে এক ঐতিহাসিক মুহূর্ত। ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্বের প্রতি আমাদের সমর্থনের বিষয়ে এটি এই অঞ্চলে এক শক্ত বার্তা পাঠাবে।’

শীর্ষ বৈঠকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির অংশগ্রহণের বিষয়টি নিশ্চিত করেছে ভারত। বৈঠকের আলোচ্যসূচিতে অগ্রাধিকারের তালিকায় থাকা ইস্যুগুলোর অন্যতম জলবায়ু পরিবর্তন ও কোভিড-১৯ মহামারি।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘অভিন্ন স্বার্থসংশ্লিষ্ট নানান আঞ্চলিক ও বৈশ্বিক ইস্যুতে আলোচনা করবেন এই নেতারা। অবাধ, উন্মুক্ত ও অন্তর্ভুক্তিমূলক ভারত-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল টিকিয়ে রাখার ক্ষেত্রে সহযোগিতার বাস্তব ক্ষেত্রগুলোতে নিজেদের দৃষ্টিভঙ্গি বিনিময় করবেন তাঁরা।’

বৈঠকে জাপানের প্রধানমন্ত্রী ইয়োশিহিদা সুগাও অংশ নেবেন। সমুদ্রপথের নিরাপত্তা ত্বরান্বিত করা এবং এশিয়ায় করোনা মহামারি মোকাবিলায় নিরাপদ, ন্যায়সংগত ও সহজলভ্য টিকার প্রাপ্তি নিশ্চিত করার মতো বিষয়ে বক্তব্য রাখবেন তিনি।

বিজ্ঞাপন
যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন