আইনজীবী কোহেনের দাবি

ম্যান্ডেলা কোনো নেতা ছিলেন না, বলেছেন ট্রাম্প

বিজ্ঞাপন
default-image

ম্যান্ডেলা কোনো নেতা ছিলেন না—এই মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ট্রাম্পের সাবেক ব্যক্তিগত আইনজীবী মাইকেল কোহেন তাঁর নিজের নতুন একটি বইয়ে এ কথা উল্লেখ করেছেন। কারাবন্দী কোহেনের বইটি আগামী সপ্তাহে প্রকাশিত হওয়ার কথা। খবর রয়টার্সের।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচন আগামী নভেম্বরে। নির্বাচনের আগে রিপাবলিকান পার্টির প্রার্থী ট্রাম্পের বিরুদ্ধে একের পর এক বিতর্ক শুরু হয়েছে। দুই বছর আগে ফ্রান্স সফরে গিয়ে ট্রাম্প প্রথম বিশ্বযুদ্ধে নিহত মার্কিন মেরিন সেনাদের শ্রদ্ধা জানাননি। উপরন্তু ট্রাম্প তাঁদের লুজার (পরাজিত) বলে কটাক্ষও করেন বলে একটি সংবাদমাধ্যমের খবর বেরিয়েছে। সেই বিতর্কের রেশ কাটতে না কাটতেই বর্ণবাদবিরোধী নেতা নেলসন ম্যান্ডেলাকে নিয়ে ট্রাম্পের এই মন্তব্যের কথা জানা গেল।

ট্রাম্পের সাবেক ব্যক্তিগত আইনজীবী মাইকেল কোহেন তাঁর নিজের নতুন একটি বইয়ে বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রসহ বিশ্বের কালো মানুষদের একদমই পছন্দ করেন না ট্রাম্প। সব সময়ই তাঁদের কদর্য করেন তিনি। এমনকি দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট প্রয়াত নেলসন ম্যান্ডেলাও বাদ যাননি ট্রাম্পের রোষানল থেকে।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

কোহেন বেশ কয়েক বছর ট্রাম্পের ঘনিষ্ঠ আইনজীবী হিসেবে কাজ করেন। গত বছর ট্রাম্পের অভিশংসন নিয়ে কংগ্রেসে দেওয়া সাক্ষ্যে ট্রাম্পের সরাসরি সমালোচনা করেন কোহেন। কংগ্রেসে মিথ্যা বলার জন্য তাঁর তিন বছর কারাদণ্ড হয়। বর্তমানে তিনি কারাবন্দী। তাঁর নতুন বই আগামী সপ্তাহে প্রকাশিত হওয়ার কথা। তবে ওই বইয়ের একটি কপি মার্কিন গণমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্ট-এর হাতে এসেছে।

ওয়াশিংটন পোস্ট-এর খবরে বলা হয়, কোহেন নিজের বইয়ে ২০১৩ সালে ম্যান্ডেলার মৃত্যুর পরের ঘটনা তুলে ধরেন। বর্ণাবাদবিরোধী আন্দোলনের অবিসংবাদিত নেতা ম্যান্ডেলার মৃত্যুর পর ট্রাম্প বলেন, ‘ম্যান্ডেলা পুরো দেশ শেষ করে দিয়েছেন। এখন দেশটি একটি বর্জ্যে পরিণত হয়েছে। তিনি কোনো নেতা ছিলেন না।’ ট্রাম্প দক্ষিণ আফ্রিকার শ্বেতাঙ্গ শাসনের উচ্চ প্রশংসা করেছিলেন বলে বইয়ে উল্লেখ করেন কোহেন।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার জন্মস্থান সামনে এনে রাজনীতির মাঠ গরম করা ট্রাম্প ওবামাসহ অন্য কৃষ্ণাঙ্গ নেতাদের কঠোর সমালোচনা করেন। ওবামা যখন ক্ষমতায় ছিলেন, তখন একের পর এক সমালোচনা করতে দেখা যেত ট্রাম্পকে। ওবামার বিষয়ে ট্রাম্পের দৃষ্টিভঙ্গি ও ওবামাকে খাটো করার জন্য ট্রাম্পের চেষ্টার কথাও বইয়ে তুলে ধরেন কোহেন। অপ্রকাশিত বইয়ে কোহেন বলেন, ওবামাকে তুচ্ছতাচ্ছিল্য ও বিদ্রূপ করতে লোক ভাড়া করেছিলেন ট্রাম্প। ভাড়া করা ওই কৃষ্ণাঙ্গকে দিয়ে ভিডিওও বানান।

হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র কাইলি ম্যাকনানি কোহেনের বইয়ের বিশ্বাসযোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। শনিবার এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, মাইকেল কোহেন একজন অপরাধী ও নিষিদ্ধ আইনজীবী, যিনি কংগ্রেসে মিথ্যা বলেছেন। তিনি তাঁর সব বিশ্বাসযোগ্যতা হারিয়েছেন। তাঁর সর্বশেষ এই মিথ্যা প্রচারণায় অবাক হওয়ার মতো কিছু নয়।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ট্রাম্প কোহেনকে একজন মিথ্যাবাদী ও ইঁদুর বলেছেন। তবে কোহেন বলেছেন, ট্রাম্পের বিরোধিতা করায় তাঁর সমর্থকদের থেকে তিনি হত্যার হুমকি পেয়েছেন।

ট্রাম্পের শিবির যা-ই বলুক না কেন, আগামী প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে প্রকাশিত হতে যাওয়া কোহেনের বইটিতে ট্রাম্পের পুনর্নির্বাচিত হওয়ার পথ আরও কঠিন করে তুলবে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকেরা।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন