default-image

যুক্তরাষ্ট্রে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন ও তার ফলাফল নিয়ে চলমান ডামাডোলের মধ্যে এক দিনে রেকর্ডসংখ্যক করোনাভাইরাসের সংক্রমিত রোগী শনাক্ত হয়েছেন। আজ বৃহস্পতিবার বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।

করোনা সংক্রমিত রোগী শনাক্তের রেকর্ডটি হয়েছে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের পরদিন ৪ নভেম্বর, বুধবার। ৩ নভেম্বর দেশটিতে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে আনুষ্ঠানিক ভোট নেওয়া হয়। এবার করোনার সংক্রমণ এড়াতে দেশটিতে রেকর্ডসংখ্যক ভোটার আগাম ভোট দিয়েছেন।

রয়টার্সের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রে বুধবার অন্তত ১ লাখ ২ হাজার ৫৯১ জন নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের করোনাবিষয়ক হালনাগাদ তথ্য দিয়ে আসছে ওয়ার্ল্ডোমিটার ওয়েবসাইট। ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য বলছে, দেশটিতে সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ১ লাখ ৮ হাজার ৩৮৯ জন নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। একই সময় করোনায় দেশটিতে মারা গেছেন ১ হাজার ২০১ জন।

আগে যুক্তরাষ্ট্রে এক দিনে সর্বোচ্চ ১ লাখ ২৩৩ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছিলেন। এই রেকর্ডটি হয়েছিল গত ৩০ অক্টোবর।

সাম্প্রতিক সময়ে দেশটিতে করোনা সংক্রমণের ঊর্ধ্বমুখী ধারা লক্ষণীয়।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য অনুযায়ী, গত ৩ নভেম্বর প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের দিন দেশটিতে ৯৪ হাজার ৪৬৭ জন করোনা রোগী শনাক্ত হন। এদিন মারা যান ১ হাজার ১৮৭ জন।

২ নভেম্বর ৮৯ হাজার ৪ জন নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হন। মারা যান ৫২০ জন।

১ নভেম্বর ৭৬ হাজার ৪৮৮ জন নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হন। মারা যান ৩৯৬ জন।

গতকাল দেশটির বিভিন্ন অঙ্গরাজ্যের হাসপাতালগুলো অধিক সংখ্যায় নতুন করোনা রোগী ভর্তির তথ্য দিয়েছে।

গতকাল নয়টি অঙ্গরাজ্য এক দিনে রেকর্ডসংখ্যক রোগী শনাক্তের কথা জানিয়েছে। অঙ্গরাজ্যগুলো হলো কলোরাডো, আইডাহো, ইন্ডিয়ানা, মেইন, মিশিগান, মিনেসোটা, রোড আইসল্যান্ড, ওয়াশিংটন ও উইসকনসিন।

বিশ্বে করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে করোনা শনাক্ত হওয়া মোট রোগীর সংখ্যা ৯৮ লাখ ১ হাজার ৩৫৫।

দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় মারা গেছেন ২ লাখ ৩৯ হাজার ৮২৯ জন। এই মুহূর্তে দেশটিতে সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা ৩২ লাখ ৬৯ হাজার ৫০৭।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0