বন্দুক আইনের সংস্কার আনা প্রসঙ্গে যুক্তরাষ্ট্র মোটাদাগে বিভক্ত। যদিও প্রায়শই দেশটিতে বন্দুক হামলার ঘটনা ঘটছে। এসব হামলায় বহু মানুষ প্রাণ হারাচ্ছেন। মূলত ডেমোক্র্যাটরা বন্দুক আইন সংস্কার করার পক্ষে, রিপাবলিকানরা বিপক্ষে। গতকাল
পাস হওয়া বিলের পক্ষে মাত্র দুজন রিপাবলিকান আইনপ্রণেতা ভোট দিয়েছেন।

তবে কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদে পাস হওয়া ওই বিলটি সিনেটে আটকে যেতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। কারণ, ১০০ জন সিনেটরের মধ্যে ৫০ জন ডেমোক্র্যাট দলীয়। নিয়ম অনুযায়ী সিনেটে কোনো বিষয় তুলতে গেলে ৬০ জন সিনেটরের ভোট প্রয়োজন। তাই বিলটি সেখানে পাসে আরও ১০ রিপাবলিকান সিনেটরের সমর্থন লাগবে।

এর আগে বন্দুক নিষিদ্ধ নিয়ে ১৯৯৪ সালে কংগ্রেসে একটি বিল পাস হয়েছিল। কংগ্রেসের উভয় কক্ষে পাস হওয়া ওই বিলটির কারণে ১০ বছরের জন্য ‘অ্যাসল্ট রাইফেল’ ও উচ্চক্ষমতা–সম্পন্ন গুলি বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞা ছিল। তবে ২০০৪ সালে আইনটির মেয়াদ শেষ হয়। এর পর থেকে যুক্তরাষ্ট্রে অস্ত্র বিক্রি অনেক বেড়ে গেছে।

শুক্রবার প্রতিনিধি পরিষদে পাস হওয়া ওই বিলে কিছু আধা স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র বিক্রি, আমদানি, উৎপাদন, সরবরাহ নিষিদ্ধ করার কথা বলা হয়েছে। সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের বাফেলো, উভালদে, টেক্সাস, হাইল্যান্ড পার্ক, ইলিনয়, নিউইয়র্ক শহরসহ কয়েকটি প্রাণঘাতী বন্দুক হামলার ঘটনায় এসব অস্ত্র ব্যবহার করেছিলেন হামলাকারী ব্যক্তিরা।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন