ইভানকা ট্রাম্প বলেন, ‘আমি বাবাকে খুব ভালোবাসি। এই সময়ে আমার ছোট সন্তানদের ও পরিবার হিসেবে যে ব্যক্তিগত জীবন তৈরি করছি, সে বিষয়কে অগ্রাধিকার দেওয়ার জন্য বেছে নিচ্ছি। তাই রাজনীতিতে জড়ানোর কোনো পরিকল্পনা নেই। বাবার প্রতি সব সময় আমার ভালোবাসা ও সমর্থন অব্যাহত থাকবে। রাজনৈতিক অঙ্গনের বাইরে থেকেও তা আমি করে যাব। মার্কিন জনগণের সেবা করার সম্মান পেয়ে আমি কৃতজ্ঞ। এ ছাড়া আমাদের প্রশাসনের অর্জনের জন্য আমি সব সময় গর্ববোধ করব।’

ইভানকা ট্রাম্পের এই বিবৃতি ডোনাল্ড ট্রাম্পের রাজনৈতিক পরিকল্পনা বিষয়ে তাঁর পরিবারের বিভাজনকে দারুণভাবে ইঙ্গিত করছে। গত সপ্তাহে সিএনএনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছিল, ইভানকা ও তাঁর স্বামী জ্যারেড কুশনার ডোনাল্ড ট্রাম্পের পক্ষে নির্বাচনী প্রচার চালাবেন না।

এর আগে নাম প্রকাশ না করার শর্তে ইভানকার পরিচিত এক ব্যক্তি বলেছিলেন, ‘ইভানকা আর আগের জীবনে ফিরে যাবেন না। তিনি জানেন এটা এমন কিছু নয় যা, এই মুহূর্তে তাঁর বা তাঁর পরিবারের জন্য প্রয়োজন।’

ডোনাল্ড ট্রাম্প ক্ষমতায় আসার পর ওই প্রশাসনে প্রথম দুই মাস ইভানকা তাঁর বাবার অনানুষ্ঠানিক পরামর্শক ছিলেন। পরে ২০১৭ সালের মার্চে তিনি প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের পূর্ণ মেয়াদকালীন উপদেষ্টা হিসেবে নিয়োগ পান।