গুগলের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, এই ছাঁটাইয়ের আওতায় পড়বেন বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের অ্যালফাবেটের কর্মীরা। এর প্রভাব খুব শিগগির যুক্তরাষ্ট্রে প্রতিষ্ঠানটির কর্মীদের ওপর পড়বে। প্রতিষ্ঠানটির মানবসম্পদ, পণ্য ও প্রকৌশলসহ বিভিন্ন বিভাগের কর্মীদের মধ্য থেকে এই ছাঁটাই করা হবে।

এমন সময় অ্যালফাবেট কর্মী ছাঁটাইয়ের তথ্য সামনে আনল, যখন বিশ্ব এক অর্থনৈতিক অনিশ্চয়তার মুখে রয়েছে। এরই মধ্যে প্রযুক্তিকে আরও সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার প্রতিশ্রুতি দিচ্ছে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানগুলো। বলা যায় গুগল ও মাইক্রোসফটের কথাই। কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার পেছনে বিপুল পরিমাণ বিনিয়োগ করছে তারা।

এ বিষয়ে অ্যালফাবেটের সিইও সুন্দর পিচাই বলেন, ‘আমাদের সামনে যে বিশাল সুযোগ রয়েছে, সে বিষয়ে আমি আত্মবিশ্বাসী। এ জন্য আমরা যে উদ্দেশ্য নিয়ে কাজ চালিয়ে যাচ্ছি, তার সক্ষমতা, আমাদের পণ্য ও সেবাগুলোর যে মান তৈরি করতে পেরেছি সেটি এবং কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তায় আমাদের আগাম বিনিয়োগের সিদ্ধান্ত প্রশংসা পাওয়ার যোগ্য।’