পেলোসির মুখপাত্র ড্রিউ হ্যামিল বলেছেন, পল পেলোসির ওপর একজন আক্রমণ করেছিলেন। হামলার পর হাসপাতালে নেওয়া হয় পলকে। পল পেলোসির অস্ত্রোপচার হয়েছে। তিনি হাতেও আঘাত পেয়েছেন। তিনি এখন ভালো আছেন। হামলাকারী হাতুড়ি হাতে স্পিকার ন্যান্সি পেলোসিকে খুঁজছিলেন।

৮২ বছরের পল হামলার সময় বাড়িতে একা ছিলেন। তাঁর স্ত্রী ন্যান্সি হামলার সময় ওয়াশিংটনে ছিলেন।

সান ফ্রান্সিসকো পুলিশপ্রধান বিল স্কট সাংবাদিকদের বলেন, আততায়ী হামলাকারী ন্যান্সি পেলোসির বাড়িতে বেলা আড়াইটার আগে ঢুকে পড়েন। বাড়িতে একা থাকা পল পেলোসির ওপর হাতুড়ি নিয়ে হামলা করেন আততায়ী।

এদিকে স্থানীয় গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, যে ব্যক্তি পলের ওপর হামলা চালিয়েছেন তিনি ন্যান্সিকে খুঁজছিলেন। হামলাকারী বাড়িতে ঢুকে পলকে বলেছিলেন, ‘ন্যান্সি কোথায়, ন্যান্সি কোথায়?’ তবে পুলিশ বলছেন, হামলার উদ্দেশ্য এখনো জানা যায়নি।

হামলাকারী ডেভিড ডিপেপে। বয়স ৪২ বছর।

মার্কিন বিভিন্ন গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, পল পেলোসিকে বেঁধে রেখে ন্যান্সি বাড়িতে আসার জন্য অপেক্ষা করতে চেয়েছিলেন হামলাকারী। তবে এর আগেই পল যেকোনোভাবে ৯১১-এ ডায়াল করে ফোনে পুলিশকে ঘটনাটি জানান। পুলিশ এসে ডেভিড ডিপেপেকে গ্রেপ্তার করেছে। পল পেলোসিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়।

পুলিশ বলছে, তাদের ধারণা, হামলাকারী পেছনের দরজা দিয়ে বাড়িতে ঢুকে পড়েন।
এ ঘটনার পরপরই প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন স্পিকার পেলোসির সঙ্গে কথা বলেছেন।