এসআই শাহাদাত হোসেন এজাহারে উল্লেখ করেছেন, গতকাল মঙ্গলবার সকাল ৯টা ৪০ মিনিটে বড় মগবাজারের সেন্ট ম্যারিস ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের পাশে একটি ওষুধের দোকানের সামনে পরিত্যক্ত প্লাস্টিকের ড্রামে হঠাৎ বিস্ফোরণ ঘটে। এতে পাঁচজন আহত হন। ঘটনাস্থলে গিয়ে জানা যায়, ওষুধের দোকানটি একটি বাড়ির নিচে অবস্থিত।

ওই বাড়ির মালিকের ব্যবহৃত ময়লার ড্রামটিকে তাঁর পরামর্শেই সরিয়ে নিচ্ছিল আতিকুল ইসলাম নামের ১৫ বছর বয়সী এক কিশোর। ড্রামটি সরাতে গেলেই বিস্ফোরণ ঘটে। আতিকুল ইসলাম পাশে একটি ভাঙারির দোকানের কর্মচারী। ঘটনাস্থল থেকে বিভিন্ন আলামত সংগ্রহ করে, সেটি বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে সেখানে ককটেল থেকে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে।

পুলিশ জানায়, পরিত্যক্ত ড্রামে বিস্ফোরণের ঘটনায় পথচারীসহ পাঁচজন আহত হন। তাঁদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাঁরা হলেন, পথচারী সাইদুল ইসলাম (৩৫), আবু কালাম (২৫), মো. শাহিন (৩০), মো. তারেক (২০) ও কিশোর আতিকুল ইসলাম (১৫)।

সাইদুল ইসলাম মগবাজারে অগ্রণী অ্যাপার্টমেন্টের প্রকৌশলী। কালাম, শাহীন ও তারেক একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের হয়ে ঢাকা পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডে (ডিপিডিসি) শ্রমিকের কাজ করেন। ঘটনার সময় তাঁরা রাস্তার পাশে বালু ফেলার কাজ করছিলেন।