বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশ ব্যাংকেও বসত বিশেষ বুথ। করোনাভাইরাস এসে বন্ধ হয়ে গেছে সেই প্রথা।
তবে ব্যাংকগুলো তাদের পরিচিত গ্রাহকদের নতুন টাকা নিচ্ছে। পাশাপাশি ব্যাংক কর্মকর্তারা নিজের ও পরিবারের সদস্যদের জন্য নতুন টাকা সংগ্রহ করছেন।
বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও কারেন্সি অফিসার ওবায়দুল হক প্রথম আলোকে বলেন, ঈদের আগে আজ ব্যাংকে শেষ দিন হওয়ায় সকাল থেকেই খুব চাপ। ব্যাংকগুলো অপেক্ষা করছে নতুন টাকার জন্য।

এদিকে বাংলাদেশ ব্যাংকের সামনে নতুন টাকা বিক্রেতাদেরও মন খারাপ। তাঁরা বলেন, আগে যেমন টাকা বিক্রি হতো, এখন তেমন হচ্ছে না। নতুন ২০০ টাকা নোট নেওয়ার আগ্রহ আছে। এ ছাড়া ঈদের কারণে ১০, ২০ ও ৫০ টাকার নোট অনেকে চাইছেন।
ব্যাংক কর্মকর্তারা বলছেন, করোনাভাইরাসের কারণে নতুন টাকার জন্য ব্যাংকে কেউ আসছেন না। তবে যাঁরা অন্য সেবার জন্য আসছেন, তাঁরা নতুন টাকা খুঁজছেন।

ব্যাংক থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন