• ২. পদের নাম: সাঁটমুদ্রাক্ষরিক কাম কম্পিউটার অপারেটর
    পদসংখ্যা:
    যোগ্যতা: স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অন্যূন দ্বিতীয় শ্রেণি বা সমমানের সিজিপিএসহ স্নাতক বা সমমানের ডিগ্রি। সাঁটলিপিতে প্রতি মিনিটে সর্বনিম্ন গতি বাংলায় ৪৫ ও ইংরেজিতে ৭০ শব্দ এবং কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরে সর্বনিম্ন গতি প্রতি মিনিটে বাংলায় ২৫ এবং ইংরেজিতে ৩০ শব্দ থাকতে হবে।
    বেতন স্কেল: ১০,২০০-২৪,৬৮০ টাকা (গ্রেড-১৪)
    যেসব জেলার প্রার্থীদের আবেদনের প্রয়োজন নেই: মানিকগঞ্জ, গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, রাজবাড়ী, কিশোরগঞ্জ, শেরপুর, বান্দরবান, কুমিল্লা, ফেনী, রাঙামাটি, রাজশাহী, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, কুড়িগ্রাম, ঠাকুরগাঁও, খুলনা, নড়াইল, সাতক্ষীরা ও মেহেরপুর। তবে এতিম ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটায় সব জেলার প্রার্থী আবেদন করতে পারবেন।

  • ৩. পদের নাম: ড্রাফটসম্যান (নকশাকার গ্রেড-৪)
    পদসংখ্যা: ১৯
    যোগ্যতা: স্বীকৃত শিক্ষা বোর্ড থেকে দ্বিতীয় বিভাগ বা সমমানের জিপিএসহ এইচএসসি বা সমমান পাস। অনুমোদিত প্রতিষ্ঠান থেকে দুই বছর মেয়াদি সিভিল/ আর্কিটেকচার/ বিল্ডিং ড্রাফটিং সার্টিকেটসহ কম্পিউটার এইডেড ড্রাফটিংয়ে দুই বছরের কাজের অভিজ্ঞতা। অথবা বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড থেকে আর্কিটেকচার বিষয়ে অন্যূন চার বছর মেয়াদি ডিপ্লোমা ডিগ্রি।
    বেতন স্কেল: ৯,৭০০-২৩,৪৯০ টাকা (গ্রেড-১৫)
    যেসব জেলার প্রার্থীদের আবেদনের প্রয়োজন নেই: মানিকগঞ্জ, গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, রাজবাড়ী, কিশোরগঞ্জ, শেরপুর, বান্দরবান, কুমিল্লা, ফেনী, রাঙামাটি, রাজশাহী, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, কুড়িগ্রাম, ঠাকুরগাঁও, খুলনা, নড়াইল, সাতক্ষীরা ও মেহেরপুর। তবে এতিম ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটায় সব জেলার প্রার্থী আবেদন করতে পারবেন।

  • ৪. পদের নাম: অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক
    পদসংখ্যা:
    যোগ্যতা: স্বীকৃত বোর্ড থেকে অন্যূন দ্বিতীয় বিভাগ বা সমমানের জিপিএসহ এইচএসসি বা সমমান পাস। কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরে সর্বনিম্ন গতি প্রতি মিনিটে বাংলায় ২০ এবং ইংরেজিতে ২০ শব্দ থাকতে হবে।
    বেতন স্কেল: ৯,৩০০-২৪,৪৯০ টাকা (গ্রেড-১৬)
    যেসব জেলার প্রার্থীদের আবেদনের প্রয়োজন নেই: মানিকগঞ্জ, গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, রাজবাড়ী, কিশোরগঞ্জ, শেরপুর, বান্দরবান, কুমিল্লা, ফেনী, রাঙামাটি, রাজশাহী, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, কুড়িগ্রাম, ঠাকুরগাঁও, খুলনা, নড়াইল, সাতক্ষীরা ও মেহেরপুর। তবে এতিম ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটায় সব জেলার প্রার্থী আবেদন করতে পারবেন।

  • ৫. পদের নাম: গাড়িচালক
    পদসংখ্যা:
    যোগ্যতা: জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) বা সমমান পাস। বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটি কর্তৃক ইস্যু করা বৈধ লাইসেন্সসহ (ভারী লাইসেন্স/ হালকা লাইসেন্স) ভারী/ হালকা যানবাহন চালনায় পারদর্শী।
    বেতন স্কেল: ৯,৩০০-২৪,৪৯০ টাকা (গ্রেড-১৬)
    যেসব জেলার প্রার্থীদের আবেদনের প্রয়োজন নেই: মানিকগঞ্জ, গোপালগঞ্জ, মাদারীপুর, রাজবাড়ী, কিশোরগঞ্জ, শেরপুর, বান্দরবান, কুমিল্লা, ফেনী, রাঙামাটি, রাজশাহী, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, কুড়িগ্রাম, ঠাকুরগাঁও, খুলনা, নড়াইল, সাতক্ষীরা ও মেহেরপুর। তবে এতিম ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটায় সব জেলার প্রার্থী আবেদন করতে পারবেন।

  • ৬. পদের নাম: সহকারী মডেল মেকার
    পদসংখ্যা:
    যোগ্যতা: এসএসসি বা সমমান পাস। দুই বছর মেয়াদি সিভিল/ আর্কিটেকচার/ বিল্ডিং ড্রাফটিং সার্টিফিকেটসহ কম্পিউটার এইডেড ড্রাফটিং এবং মডেল তৈরির কাজে এক বছরের বাস্তব অভিজ্ঞতা।
    বেতন স্কেল: ৮,৮০০-২১,৩১০ টাকা (গ্রেড-১৮)
    যেসব জেলার প্রার্থীদের আবেদনের প্রয়োজন নেই: মুন্সিগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, ফরিদপুর, জামালপুর, খাগড়াছড়ি, ফেনী, লক্ষ্মীপুর, নাটোর, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, কুড়িগ্রাম, মাগুরা, বাগেরহাট, কুষ্টিয়া, বরিশাল, ঝালকাঠী, বরগুনা, ও পটুয়াখালী। তবে এতিম ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটায় সব জেলার প্রার্থী আবেদন করতে পারবেন।

  • ৭. পদের নাম: সহকারী প্রিন্টার
    পদসংখ্যা:
    যোগ্যতা: এসএসসি বা সমমান পাস। অনুমোদিত প্রতিষ্ঠান থেকে দুই বছর মেয়াদি সিভিল/ আর্কিটেকচার/ বিল্ডিং ড্রাফটিং সার্টিফিকেটসহ প্রিন্টিং কাজে অন্যূন এক বছরের বাস্তব অভিজ্ঞতা।
    বেতন স্কেল: ৮,৮০০-২১,৩১০ টাকা (গ্রেড-১৮)
    যেসব জেলার প্রার্থীদের আবেদনের প্রয়োজন নেই: মুন্সিগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, ফরিদপুর, জামালপুর, খাগড়াছড়ি, ফেনী, লক্ষ্মীপুর, নাটোর, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, কুড়িগ্রাম, মাগুরা, বাগেরহাট, কুষ্টিয়া, বরিশাল, ঝালকাঠী, বরগুনা, ও পটুয়াখালী। তবে এতিম ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটায় সব জেলার প্রার্থী আবেদন করতে পারবেন।

  • ৮. পদের নাম: ইলেকট্রিশিয়ান
    পদসংখ্যা:
    যোগ্যতা: বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড থেকে ইলেকট্রিক্যাল বিষয়ে এসএসসি (ভোকেশনাল) পরীক্ষায় উত্তীর্ণসহ সংশ্লিষ্ট কাজে অন্যূন এক বছরের অভিজ্ঞতা।
    বেতন স্কেল: ৮,৫০০-২০,৫৭০ টাকা (গ্রেড-১৯)
    যেসব জেলার প্রার্থীদের আবেদনের প্রয়োজন নেই: মুন্সিগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, ফরিদপুর, জামালপুর, খাগড়াছড়ি, ফেনী, লক্ষ্মীপুর, নাটোর, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, কুড়িগ্রাম, মাগুরা, বাগেরহাট, কুষ্টিয়া, বরিশাল, ঝালকাঠী, বরগুনা, ও পটুয়াখালী। তবে এতিম ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটায় সব জেলার প্রার্থী আবেদন করতে পারবেন।

বয়সসীমা
আবেদনকারীর বয়স ২০২২ সালের ২৪ নভেম্বর ১৮ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে হতে হবে। তবে ২০২০ সালের ২৫ মার্চ প্রার্থীর বয়স সর্বোচ্চ সীমার মধ্যে থাকলে আবেদন করতে পারবেন। বীর মুক্তিযোদ্ধা/ শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও শারীরিক প্রতিবন্ধী প্রার্থীদের ক্ষেত্রে বয়সসীমা ৩২ বছর পর্যন্ত শিথিলযোগ্য।

আবেদন যেভাবে
আগ্রহী প্রার্থীদের এই ওয়েবসাইটে ফরম পূরণের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে। আবেদনপদ্ধতি, ফি জমাদান ও নিয়োগসংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য একই ওয়েবসাইট থেকে জানা যাবে।

আবেদন ফি
অনলাইনে ফরম পূরণের অনধিক ৭২ ঘণ্টার মধ্যে পরীক্ষার ফি বাবদ ১ থেকে ৫ নম্বর পদের জন্য ২০০ টাকা ও টেলিটকের সার্ভিস চার্জ ২৩ টাকাসহ মোট ২২৩ টাকা এবং ৬ থেকে ৮ নম্বর পদের জন্য ১০০ টাকা ও টেলিটকের সার্ভিস চার্জ ১২ টাকাসহ মোট ১১২ টাকা টেলিটক প্রিপেইড মুটোফোন নম্বর থেকে এসএমএসের মাধ্যমে জমা দিতে হবে।

আবেদনের সময়সীমা: ২৭ নভেম্বর থেকে ২৬ ডিসেম্বর ২০২২, বিকেল চারটা পর্যন্ত।