অনলাইন বিক্রেতাদের জন্য ‘সেলার ওয়ান’ উদ্যোগ

বিজ্ঞাপন
default-image

দেশে অনলাইনে পণ্য বিক্রেতা বা ই-কমার্স উদ্যোক্তাদের জন্য ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ই-ক্যাব), সরকারের অ্যাকসেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) কর্মসূচি ও তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের সহায়তায় পণ্য ডেলিভারি প্রতিষ্ঠান পেপারফ্লাই চালু করেছে ‘সেলার ওয়ান’ নামের বিশেষ উদ্যোগ।

এর মাধ্যমে ঢাকার বাইরের এবং গ্রাম অঞ্চলের ব্যবসায়ীরা তাঁদের উৎপাদিত পণ্য সরাসরি সারা দেশের ক্রেতাদের কাছে পৌঁছে দিতে পারবেন। গতকাল রোববার এক ভার্চ্যুয়াল অনুষ্ঠানে পেপারফ্লাই তাদের সেবাটির ঘোষণা দেয়।

অনুষ্ঠানে পেপারফ্লাইয়ের উদ্যোক্তারা জানান, ই-কমার্স ব্যবসা পরিচালনার সুবিধা দিতে ‘সেলার ওয়ান’ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এর মাধ্যমে দেশের যেকোনো এলাকা থেকে অনলাইন উদ্যোক্তা হওয়ার সুযোগ তৈরি হবে। এ সেবা দিতে দেশের সব কটি জেলায় পেপারফ্লাইের নিজস্ব পয়েন্টের মাধ্যমে পণ্য সংগ্রহ ও পৌঁছে দেওয়া হবে। ঢাকার বাইরের ও গ্রামীণ ব্যবসায়ীদের অনলাইনের মাধ্যমে দেশব্যাপী সরাসরি গ্রাহকদের কাছে তাঁদের পণ্য বিক্রয় করতেও সেবাটি সহায়তা করবে। করোনার প্রভাবে কাটাতে সেলার ওয়ান উদ্যোগ সহায়তা করবে।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

পেপারফ্লাইয়ের প্রধান বিপণন কর্মকর্তা রাহাত আহমেদ বলেন, ‘ই-কমার্সকেন্দ্রিক দরকারি পরিষেবা এবং সমাধান হিসেবে সেলার ওয়ান কর্মসূচি আনা হচ্ছে। দেশে ই-কমার্স বাড়াতে এটি সাহায্য করবে।

ই-ক্যাবের প্রেসিডেন্ট শমী কায়সার বলেন, ‘গ্রামীণ বা প্রান্তিক বিক্রেতাদের বাধা নিরসনেই ই-ক্যাব ও পেপারফ্লাই প্রচেষ্টা চালাবে।’

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন এটুআইয়ের ই-কমার্স প্রধান রেজওয়ানুল হক, ই-ক্যাবের ভাইস প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ সাহাব উদ্দিন প্রমুখ।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

অনুষ্ঠানে বক্তারা আরও বলেন, কোভিড-১৯–এর কারণে প্রচুর ব্যবসা বন্ধ রয়েছে বা বন্ধ হওয়ার পথে। ছোট ব্যবসাগুলোর বেঁচে থাকতে ও বেড়ে উঠতে বিকল্প বিক্রয়ব্যবস্থার প্রয়োজন। ই-কমার্স দিন দিন জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। বর্তমানে ৫০ হাজারেরও বেশি অনলাইন মার্চেন্ট ফেসবুক প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে তাদের ব্যবসা পরিচালনা করছে এবং এই সক্রিয় এফ-কমার্স বিক্রেতাদের বেশির ভাগই ঢাকার ভেতরের।

ঢাকার বাইরের অনলাইনে ব্যবসা এখনো পেশাদার কোনো ই-কমার্সকেন্দ্রিক লজিস্টিক পার্টনার, অনলাইনে ব্যবসা পরিচালনার জ্ঞান এবং আর্থিক সহায়তার অভাবের কারণে বিকশিত হয়নি। উদ্যোক্তাদের ব্যবসা অনলাইনে আনার জন্য একটি চ্যানেল সৃষ্টির মাধ্যমে তাদের ক্ষমতায়ন করার মধ্য দিয়ে দেশজুড়ে ই-কমার্স শিল্প বিকাশের একটি সম্ভাবনাময় সুযোগ রয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন