মালায়লাম ভাষায় ‘দৃশ্যম টু’ আগেই ওটিটিতে চলে এসেছিল। মালায়লাম হোক বা তামিল, ভাষা এখন আর কোনো অন্তরায় নয়। সাবটাইটেল পড়ে স্প্যানিশ, কোরিয়ান, তেলেগু, তামিল সব ছবি এখন গুলে খাওয়া যায়। তাই ‘দৃশ্যম টু’ ছবির সফলতাকে ঘিরে নির্মাতাদের মনে সংশয় ছিল। কারণ, অনেকেই মালায়লাম ভাষায় ‘দৃশ্যম টু’ আগেই দেখে ফেলেছেন। থ্রিলার–ধর্মী ছবি থেকে রহস্যের পর্দা একবার সরে গেলে সব মজাই শেষ। কিন্তু তা সত্ত্বেও ‘দৃশ্যম টু’ ছবির হিন্দি সংস্করণ বক্স অফিসে রীতিমতো দৌড়াচ্ছে।

সিনেমা হলের মালিকদের মুখে অনেক দিন পর হাসি ফুটেছে। কারণ, কোভিডের পর থেকে দক্ষিণি ছবির দাপট বেশি। এদিকে ‘দৃশ্যম’ ছবির নির্মাতাদের লক্ষ্মীর ভান্ডার যে উপচে পড়তে চলেছে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না। কয়েক মাস আগে একমাত্র কার্তিক আরিয়ানের ‘ভুল ভুলাইয়া ২’ ভালো ব্যবসা করেছিল। তবে প্রথম সপ্তাহের আয়ের দিক থেকে অজয়ের এই ছবি ‘ভুল ভুলাইয়া ২’-কে ছাপিয়ে গেছে। ‘দৃশ্যম টু’ ছবিটি লম্বা রেসের ঘোড়া বলে অনেকেই এখন মনে করছেন। মুক্তির পাঁচ দিনের মাথায় ছবিটি ৮৬ দশমিক ৬৬ কোটি আয় করেছে। এদিকে অমিতাভ বচ্চনের ‘উঁচাই’ ছবিও মোটামুটি ব্যবসা করেছে। ছবিটি মুক্তির ১২ দিনের মাথায় মোট ২৫ দশমিক ৫ কোটি আয় করেছে।

‘দৃশ্যম’ ছবির তৃতীয় ভাগ আসবে কি না, তা নিয়ে বলিপাড়ায় প্রবল ফিসফাস ছিল। খবর যে ‘দৃশ্যম টু’-র জয়জয়কার দেখে এর তৃতীয় ভাগ আনার পাকাপাকি সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছেন নির্মাতারা। এ ব্যাপারে ছবির পরিচালক অভিষেক পাঠক বলেছেন, ‘আমরা আশা করিনি, ছবিটিকে ঘিরে দর্শকদের এত ভালো প্রতিক্রিয়া পাব। জানতাম ছবিটি ভালোবাসা পাবে, তবে এতটা পাবে, তা কল্পনাও করিনি। আমাদের আশার থেকে অনেক বেশি পাচ্ছি। পরিচালক হিসেবে এ ছবির মাধ্যমে আমি আমার ক্যারিয়ার শুরু করেছি। আর প্রথম ছবিতেই এত ভালো সাড়া পেয়ে আত্মবিশ্বাস বেড়েছে।’

‘দৃশ্যম থ্রি’ আসবে বলেও অভিষেক নিশ্চিত করেছেন। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেছেন, ‘আমরা এই ছবির তৃতীয় ভাগ নিয়ে আসব। শিগগিরই কাহিনি লেখার কাজ শুরু হয়ে যাবে। “দৃশ্যম” ছবির প্রথম ভাগ যখন মালায়লাম ভাষায় এসেছিল, তখন তার সাবটাইটেল ছিল না, তার ফায়দা আমরা পেয়েছিলাম। এখন চেষ্টা করব যে আমরা একসঙ্গে এই ছবির তৃতীয় ভাগ আনার। আমরা আমাদের ভাষায় (হিন্দি) আনব, আর ওরা ওদের ভাষায় (মালায়লাম) ছবিটি রিলিজ করবে। আর এতে আরও মজা হবে।’
নবীন এ পরিচালক জানান যে অজয় দেবগনের সঙ্গে এ ব্যাপারে কথাবার্তা হয়ে গেছে। এখন তাঁরা ছবির কাহিনি লেখার ওপর মন দিতে চান।

মালায়লাম ‘দৃশ্যম’ ছবিতে অজয়ের চরিত্রে আছেন সুপারস্টার মোহনলাল। ২০১৩ সালে জীতু যোসেফ পরিচালিত ছবিটি মুক্তি পেয়েছিল। এর ঠিক দুই বছর পর পরিচালক নিশিকান্ত কামাত ‘দৃশ্যম’ ছবি হিন্দি সংস্করণ নিয়ে এসেছিলেন। নিশিকান্তর 'দৃশ্যম' ক্রাইম-থ্রিলার ঘরানাকে এক অন্য মাত্রায় পৌঁছে দিয়েছিল। এই ছবির সাসপেন্স দর্শককে এমন এক বাঁকে নিয়ে এসে দাঁড় করিয়েছিল যে সাত বছর পর এই রহস্যের জট খুলতে তাঁরা মরিয়া ছিলেন।

‘দৃশ্যম’ ছবির প্রযোজক কুমার মঙ্গতের ছেলে অভিষেক পাঠক এর দ্বিতীয় ভাগের পরিচালনা করেছিলেন। এই ছবির তৃতীয় মৌসুমের দায়িত্ব যে তাঁর কাঁধে উঠবে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না।