default-image

মূলত এই মন্তব্যের জের ধরেই সামাজিক মাধ্যমে ‘লাল সিং চাড্ডা’বিরোধী প্রচার চালানো হয়। এ নিয়ে কয়েক দিন আগেও দুঃখ প্রকাশ করেছেন আমির, ‘ওই মন্তব্যে যদি কাউকে আঘাত দিয়ে থাকি, আমি তার জন্য দুঃখিত। কাউকে কষ্ট দিতে চাইনি। যদি কেউ ছবি দেখতে না চায়, আমি তার সিদ্ধান্তকে সম্মান জানাই।’

default-image

তবে আমিরের দুঃখ প্রকাশ যে অনেককে সন্তুষ্ট করতে পারেনি আজকের বিক্ষোভই তার প্রমাণ। বৃহস্পতিবার ‘লাল সিং চাড্ডা’বিরোধী বিক্ষোভ হয়েছে বেনারসে। শহরটিতে বিক্ষোভে অংশ নেন ‘সনাতন রক্ষক সেনা’র সদস্যরা। তাঁরা বলেন, আমির যেহেতু দেশে থাকতে চান না, তাই তাঁর ছবি বিদেশেই মুক্তি দেওয়া হোক। বেনারসের বিয়জা মলে মুক্তি পেয়েছে আমিরের ছবিটি। এবারই প্রথম নয়, ‘সনাতন রক্ষক সেনা’র সভাপতি চন্দ্র প্রকাশ সিং আমিরের আরেকটি ছবি ‘পিকে’ মুক্তির পরও অভিনেতার বিরুদ্ধে ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলেছিলেন। আজকের বিক্ষোভ শেষে উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্য নাথের কাছে ‘লাল সিং চাড্ডা’ নিষিদ্ধের আবেদন করে সংগঠনটি।

default-image

আমিরের ছবির বিরুদ্ধে বিক্ষোভ হয়েছে পাঞ্জাবেও। সেখানে অবশ্য ইস্যু ভিন্ন। ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দেওয়ার অভিযোগে রাজ্যটিতে ছবির প্রদর্শনী আটকে দেওয়ার চেষ্টা করে ‘শিব সেনা হিন্দ’-এর সদস্যরা। বলিউড হাঙ্গামা জানিয়েছে, রাজ্যের জালান্ধারের এমডিবি মলে এ ঘটনা ঘটেছে। তবে ‘শিখ তাল-মেল’ নামের আরেকটি সংগঠনের সদস্যরা এসে পরিস্থিতি সামাল দেন। এরপর শুরু হয় প্রদর্শনী। পরে ছবিটির প্রদর্শনী বন্ধের জন্য পুলিশের ডিসিপি বরাবর চিঠিও দিয়েছে শিব সেনা হিন্দ।
ছবি মুক্তির পর ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে ‘লাল সিং চাড্ডা’বিরোধী বিক্ষোভ নিয়ে আমির খানের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

default-image

এদিকে আজ প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির পর বেশির ভাগ সমালোচকই ‘লাল সিং চাড্ডা’কে মাঝারি মানের বলে রায় দিয়েছেন। ৫-এর মধ্যে বেশির ভাগ রেটিংয়ে ছবিটি পেয়েছে ৩ থেকে ৩ দশমিক ৫। বক্স অফিস রিপোর্টে ধাক্কা খেয়েছেন আমির। বলিউড হাঙ্গামা জানাচ্ছে, ভারতের বেশির ভাগ শহরেই ছবিটির প্রথম দেখতে একেবারেই ভিড় ছিল না, যা উৎসবে মুক্তি পাওয়া ছবির ক্ষেত্রে অস্বাভাবিক।

বলিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন