এই সময় তারা আরও উল্লেখ করে, ‘সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রচারিত ঘটনাটি সম্ভবত একটি দুর্ভাগ্যজনক ভুল–বোঝাবুঝির ফলাফল। আমরা এই ঘটনাটি ঘটতে দেখে গভীরভাবে দুঃখিত এবং আমাদের নজরে আনার জন্য সংশ্লিষ্ট পক্ষের প্রতি কৃতজ্ঞ। আমরা, স্টার সিনেপ্লেক্স পরিবার, আমাদের গ্রাহকদের সেরা সিনেম্যাটিক অভিজ্ঞতা দিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ এবং আমরা এই ভদ্রলোককে তাঁর পরিবারের সঙ্গে আমাদের সনি স্কয়ার শাখায় “পরাণ” দেখার জন্য আন্তরিকভাবে আমন্ত্রণ জানাই। এ ছাড়া আমরা এই ঘটনা তদন্ত করছি যেন ভবিষ্যতে এই ধরনের ভুল–বোঝাবুঝি না হয়।’
গতকাল বুধবার রাতে ফেসবুকে চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্ট কিছু পেজ ও গ্রুপের মাধ্যমে জানা যায়, ঢাকার সনি সিনেমা হলে ‘পরাণ’ সিনেমা দেখতে যান লুঙ্গি পরিহিত এক ব্যক্তি। লুঙ্গি পরা থাকায় তাঁর কাছে টিকিট বিক্রি করেনি হল কর্তৃপক্ষ। এমন ঘটনার ভিডিও ফেসবুকে প্রকাশের পরেই নজরে পড়ে পরাণ সিনেমার পরিচালক রায়হান রাফি, নায়ক শরীফুল রাজ, নায়িকা বিদ্যা সিনহা মিমসহ অনেকে।

গত রাত থেকেই তাঁরা ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে লোকটিকে খুঁজতে থাকেন একসঙ্গে ছবি দেখার জন্য। আজ তাঁর খোঁজ মেলে। তাঁর নাম আমান আলী। গ্রামের বাড়ি সিরাজগঞ্জ। ঢাকায় ছেলের মিরপুরের বাসায় বেড়াতে এসে সনি স্কয়ারে গিয়েছিলেন। তাঁর ছেলে শফি আলম প্রথম আলোকে বলেন, ‘আমার বাবা লুঙ্গি পরে সিনেমা হলে যাওয়ায় তাঁকে টিকিট দেওয়া হয়নি। আমরাও লুঙ্গি পরি, এমনটা কেন করা হবে? আমার বাবা আর সিনেমা দেখতে হলে যাবেন না। যদি “পরাণ” সিনেমার নায়ক-নায়িকা বাবাকে হলে নিয়ে সিনেমা দেখায়, তাহলে যাবেন।’

default-image

জানা গেছে বৃহস্পতিবার স্টার সিনেপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ সামান আলী সরকারকে ছবি দেখার আমন্ত্রণ জানায়। ফেসবুকে প্রকাশ করা এক বিবৃতিতে প্রতিষ্ঠানটির জ্যেষ্ঠ বিপণন কর্মকর্তা মেজবাহ উদ্দিন লিখেছেন, আমরা এরই মধ্যে উক্ত ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ করে উনাকে ও উনার পরিবারসহ স্টার সিনেপ্লেক্সে ছবি দেখার জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছিলাম। উনি আমাদের কথা রেখেছেন ও আজ সন্ধ্যায় তিনি তার পরিবারসহ স্টার সিনেপ্লেক্সের মিরপুর সনি স্কয়ার শাখায় ‘পরাণ’ ছবিটি দেখছেন। সম্পূর্ণ স্টার সিনেপ্লেক্স পরিবারের পক্ষ থেকে সামান আলী সরকার এবং তাঁর পরিবারকে আমাদের শ্রদ্ধা ও শুভেচ্ছা আপনাকে খুশি করতে পেরে আমরা আনন্দিত।’

ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন