default-image
>

সম্প্রতি ‘হৃদয় জুড়ে’ সিনেমার ‘তুমি শুধু আমার’ ও ‘হৃদয় জুড়ে’ শিরোনামে দুটি গানের ভিডিও প্রকাশিত হয়েছে সংগীতশিল্পী ইমরান মাহমুদুলের। এ ছাড়া নতুন বছরে বেশ কিছু সিনেমার গানে কণ্ঠ দিয়েছেন তিনি। সমানতালে চলছে স্টেজ শো। সবকিছু নিয়ে ব্যস্ততা কেমন? তারই কিছু আলাপ থাকল আজ।

‘তুমি শুধু আমার’ গানটি কোন ধরনের?
গানটির দৈর্ঘ্য প্রায় ৯ মিনিট। ভিডিওতে ছোট পর্দার অভিনেতা তৌসিফ ও উপস্থাপক নীল মডেল হয়েছেন। গানটির সংগীতশিল্পী আমি এবং পূজাও মডেল হয়েছি। আমরা কেউ গানের সঙ্গে ঠোঁট মেলাইনি। একটি গল্প বলার চেষ্টা করেছি গানটি দিয়ে।

default-image

কোন গানটিকে দর্শক এগিয়ে রাখবেন?
দুটি দুই ধরনের গান। একটি সিনেমার, অন্যটি অ্যালবামের। অ্যালবামের গানটি গল্পনির্ভর। সিনেমার গানটি পুরোপুরি বাণিজ্যিক ঘরানার। দুটি গানে দুই ধরনের দর্শক আছে। আমার বিশ্বাস, দিন শেষে দুটি গানই আলাদা আলাদা দর্শকের কাছে ভালো লাগবে। সবেমাত্র প্রকাশিত হয়েছে। আরও কিছুদিন না গেলে এখনই বোঝা যাচ্ছে না, দর্শক কোনটাকে এগিয়ে রাখছেন।

নাটক কিংবা সিনেমায় অভিনয়ের ইচ্ছা আছে?
অনেকেই অভিনয়ের প্রস্তাব দেন। আমি করতে চাই না। আমি যদি এখন অভিনয় করতে যাই, তাহলে প্রকৃত অভিনয়শিল্পীদের খাটো করা হবে। কারণ, আমি অভিনয় জানি না। কখনো শিখিনি। আমি যেমন গান শিখে এসেছি, এখনো শিখছি, এরপর গান করতে এসেছি। তেমন অভিনয় না শিখে করা ঠিক নয়।

default-image

প্লে ব্যাকের কী খবর?
প্লে ব্যাকটাই বেশি করার ইচ্ছা। এর মধ্যে ‘সিক্রেট এজেন্ট’, ‘সাইকো’, ‘গ্যাংস্টার’, ‘ওস্তাদ’, ‘আকবর’, ‘ক্যাসিনো’, ‘লন্ডন লাভ’সহ অনেকগুলো ছবিতে গান করলাম। ছবিগুলো এ বছর মুক্তি পাবে।

সিনেমার গান বেশি করতে চান কেন?
সিনেমার গান মানুষ বেশি মনে রাখে। সিনেমা দেখতে বসে গানের মধ্যে দর্শক বেশি মনোযোগ দেয়। ফলে দর্শকের কাছে গান বেশিদিন বেঁচে থাকে। দেখবেন, পুরোনো দিনের কালজয়ী গানগুলোর বেশির ভাগই সিনেমার।

স্টেজ শোর ব্যস্ততা কেমন?
নিয়মিত করছি। এখন তো স্টেজ শোর মৌসুম। নভেম্বর থেকে শুরু হয়েছে। আগামী এপ্রিল পর্যন্ত মোটামুটি চলবে। মৌসুমে বেশি শো থাকে।

গানের রাজা চ্যাম্পিয়ন লাবিবা ও প্রথম রানারআপ শফিকুলের পর দ্বিতীয় রানারআপ সিঁথি সরকারকে নিয়ে গান করলেন। কেমন হলো?
গানের রাজা প্রতিযোগিতার আমি একজন বিচারক ছিলাম। চুড়ান্ত পর্বের আগে সেরা পাঁচের পাঁচজনকে নিয়ে মৌলিক গান করার ঘোষণা দিয়েছিলাম আমি। নাবিবা ও শফিকুলকে নিয়ে গান করেছি। এবার সিঁথিকে নিয়ে করলাম। আমি নিজেও তাঁর সঙ্গে গেয়েছি। এর মধ্যে গানের ভিডিওর কাজও শুরু হয়েছে। গানে মডেল হয়েছেন লাক্স চ্যাম্পিয়ন নাদিয়া মিম। আমার সঙ্গে তাঁর প্রথম কাজ এটি।

default-image

অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ ক্রিকেটে বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। কেমন লাগছে?
পরপর চারবারের চ্যাম্পিয়ন ভারতকে পরাজিত করে বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। কতটা খুশি হয়েছি, বলে বোঝাতে পারব না। শো থাকার কারণে পুরো খেলাটি দেখতে পারিনি। আমাদের জুনিয়র টাইগারদের খেলার যে স্পিড, জাতীয় টিমে অনেক ভালো করবেন তাঁরা। একদিন এখান থেকেই নতুন নতুন সাকিব, মাশরাফি, তামিম, মুশফিকরা বের হবেন।

বিজ্ঞাপন
আলাপন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন