বিষয়

রাফায়েল নাদাল

রাফায়েল নাদাল

৬০০ দিন পর ফেদেরার রোল নম্বর পাঁচ

করোনাকে পাশ কাটিয়ে ইউএস ওপেন হয়েছে, ফ্রেঞ্চ ওপেন হয়েছে, এখানে-সেখানে এটিপি টেনিস টুর্নামেন্ট চলছে, কিন্তু রজার ফেদেরার ঘরে বসে। লম্বা এই বিরতির প্রভাব তাঁর ৩৯ বছর বয়সী শরীরে, তাঁর টেনিসে কতটা পড়েছে, ...

ফেদেরারকে টেনিস কোর্টে দেখার অপেক্ষা জানুয়ারির আগে হয়তো ফুরাচ্ছে না।

‘১০০০ ম্যাচ জয় তো বিশেষ কিছুই’

চতুর্থ পুরুষ খেলোয়াড় হিসেবে পেশাদার ক্যারিয়ারে হাজারতম জয় পেয়েছেন রাফায়েল নাদাল।

হাজারতম জয়ের পর রাফায়েল নাদাল। কাল প্যারিস মাস্টার্সে।

বেকারের বিশ্লেষণ

ফেদেরার না নাদাল—সর্বকালের সেরা কে?

টেনিসে কে সর্বকালের সেরা—রাফায়েল নাদাল না রজার ফেদেরার? এ প্রশ্নের জবাব খোঁজার চেষ্টা করেছেন ছয়বারের গ্র্যান্ডস্লাম চ্যাম্পিয়ন বরিস বেকার

রজার ফেদেরার ও রাফায়েল নাদাল—টেনিসের দুই কিংবদন্তি।

বলছেন অ্যান্ডি মারে

‘নাদালের রেকর্ডের কাছেও যেতে পারবে না কেউ’

ফ্রেঞ্চ ওপেনে অবিশ্বাস্য রেকর্ড রাফায়েল নাদালের। স্প্যানিশ তারকার ১৩ শিরোপার রেকর্ড কখনোই ভাঙবে না বলে ভাবছেন ব্রিটিশ টেনিস তারকা অ্যান্ড মারে।

ফ্রেঞ্চ ওপেনে ১৩তম শিরোপা জিতে গ্র্যান্ড স্লাম জয়ে ফেদেরারের পাশে বসেছেন নাদাল।

‘চাঁদে অবতরণ’ নাদালের

বছরটা এমন যে কোনো কিছুই স্বাভাবিক না। লাল দুর্গে অবশ্য এসব খাটেনি। রোঁলা গাঁরোয় ১০২তম ম্যাচে এসে ১০০তম জয়, ১৩তম শিরোপা—রাফায়েল নাদাল পরশু আবারও প্রমাণ করলেন ফ্রেঞ্চ ওপেনের লাল মাটি তাঁর রাজপাট। সেটিও ...

ফ্রেঞ্চ ওপেনের শিরোপা নিয়ে লকার রুমে রাফায়েল নাদাল।

ফেদেরারের ‘২০’–এ ভাগ বসালেন দাপুটে নাদাল

১৫ বছর হয়ে গেল রোলাঁ গারোতে প্রথম ম্যাচ খেলেছেন নাদাল, এতদিন পরও সেখানে তাঁর জয়ের হার ৯৮.০৪ শতাংশ! রোলাঁ গারো তাঁর ‘বাড়ি’, তারওপর সামনে ফেদেরারের ইতিহাস ছোঁয়ার হাতছানি...দুইয়ে মিলিয়েই কি এমন ...

তাঁর সার্ভ ফেরাতে পারলেন না জোকোভিচ। শিরোপা নিশ্চিত হলো। আনন্দটা সেই মুহূর্তে এভাবেই ফুটে উঠল নাদালের চোখেমুখে।

গ্র্যান্ড স্লামে নাদাল–জোকোভিচের সেরা ৬ লড়াই

এখনো চোখে লেগে আছে বা কখনোই মানুষ ভুলতে পারবে না-নাদাল-জোকোভিচের এমন লড়াইয়ের সংখ্যাও নেহাত কম নয়।

রাফায়েল নাদালকে ২০১২ সালে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের ফাইনালে হারিয়েছিলেন নোভাক জোকোভিচ।

নাদালের ‘ঘরে’ স্বপ্নের ফাইনালের অপেক্ষা

টেনিস কোর্টে নাদাল-জোকোভিচের লড়াইয়ের ৫৬তম পর্ব এটি। নিজেদের লড়াইয়ের ইতিহাসে ৫৬তম পর্বে এসে দুজনেই দাঁড়িয়ে ইতিহাস গড়ার সামনে।

ফ্রেঞ্চ ওপেনে এবারের ফাইনালের আগে ৫৫ বার মুখোমুখি হয়েছেন রাফায়েল নাদাল ও নোভাক জোকোভিচ।

নাদালকে হারানোর সবচেয়ে ভালো সুযোগ জোকোভিচের

: ২০১২ ও ২০১৪ ফ্রেঞ্চ ওপেনে জোকোভিচকে হারিয়েছেন নাদাল। এবারও ফাইনালে সেই নাদালকে পাচ্ছেন সার্বিয়ান। তবে এবার ফাইনাল ভাগ্য বদলানোর আশা জোকারের। কারণ ফ্রেঞ্চ ওপেনে সর্বশেষ মুখোমুখি লড়াইয়ে যে জয়ী তিনিই

আরেকটি গ্র্যান্ড স্লামের ফাইনালে জোকোভিচ।

ফেদেরার-নাদালের মাঝে এখন শুধুই জোকোভিচ

রাফায়েল নাদাল ফাইনালে উঠে বসেছিলেন আগেই। ঘণ্টা চারেক পর জানা গেল আরেকটা ফ্রেঞ্চ ওপেন জয়ের পথে নাদালের সর্বশেষ বাধা হতে যাচ্ছেন কে। নোভাক জোকোভিচই নাদালের সঙ্গে খেলবেন ফাইনাল।

ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালে উঠেছেন জোকোভিচ।
আরও