এর আগে যুক্তরাষ্ট্রের সেন্ট্রাল কমান্ডের প্রধান মেরিন জেনারেল ফ্রাঙ্ক ম্যাকেঞ্জি স্থানীয় সময় গতকাল সোমবার পেন্টাগনে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, আফগানিস্তানে এখনো ১০০ থেকে ২৫০ জন মার্কিন রয়ে গেছেন। তাঁরা বিমানবন্দরে পৌঁছাতে পারেননি অথবা তাঁরা উড়োজাহাজে উঠতে পারেননি।

আফগানিস্তান থেকে লোকজন সরিয়ে নেওয়ার এই কাজে যুক্ত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের সেনা কর্মকর্তা অ্যালেক্স প্লিটাস। তিনি এক টুইট বার্তায় লিখেছেন, তালেবান ওই মার্কিনদের শেষ মুহূর্তে বিমানবন্দরে প্রবেশ করতে দেয়নি। এমন অনেকের সঙ্গে তাঁর যোগাযোগ রয়েছে। তিনি বলেন, লোকজন সরিয়ে নেওয়ার এই প্রক্রিয়া শেষ করার ক্ষেত্রে তালেবান অসহযোগিতা করেছে। বিমানবন্দরের গেটের বাইরে সহযোগিতা করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে তালেবান।

অ্যালেক্স প্লিটাস বলেন, ‘আমাদের নাগরিকদের সেখান থেকে উদ্ধার করতে পারিনি আমরা। আমরা জানি না, তাঁরা কোথায়।’

শুধু মার্কিনরা যে আটকা পড়েছেন, এমনটা নয়। অনেক আফগান, যাঁদের ভিসা রয়েছে, তাঁদেরও আটকে দিয়েছে তালেবান। এমন ঘটনার ছবিও প্রকাশ করেছেন অ্যালেক্স প্লিটাস। ওই ছবির সঙ্গে টুইট বার্তায় তিনি লিখেছেন, হামিদ কারজাই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের বাইরে যুক্তরাষ্ট্রের পাসপোর্টধারী ব্যক্তিদের এভাবেই আটকে দেওয়া হয়েছে। সেখানে উপস্থিত যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা যা করা সম্ভব চেষ্টা করেছেন, কিন্তু দিন শেষে এই চেষ্টা কোনো কাজে আসেনি।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন