‘এ জীবন তোমার আমার’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে ১৯৯৭ সালে বড় পর্দায় অভিষেক হয় পূর্ণিমার। এর পর থেকে ছোট ও বড় দুই পর্দায় সমানতালে কাজ করে গেছেন তিনি। কাজ করেছেন বিজ্ঞাপনচিত্রেও। উপস্থাপক হিসেবেও নিজেকে মেলে ধরেছেন পূর্ণিমা। চরকির মাধ্যমে ওয়েব ফিল্মেও অভিষেক ঘটে। এবার বঙ্গবিডির প্রযোজনায় তৈরি ওয়েব সিরিজেও তাঁকে দেখা যাবে।

জানা গেছে, এই ওয়েব সিরিজে পূর্ণিমা এক পুলিশ কর্মকর্তার চরিত্রে অভিনয় করছেন। পরিচালক বলেন, ‘পূর্ণিমা যে অসাধারণ অভিনয়শিল্পী, এটা বলার অপেক্ষা রাখে না। আমার “হোটেল রিলাক্স”–এ পুলিশ কর্মকর্তা চরিত্রের কথা যখন ভাবছিলাম, তখন তাঁকেই একমাত্র পছন্দ ছিল। তাঁর সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে কাজের ইচ্ছাও ছিল। এবার সব মিলিয়ে ঘটে গেল। পরিচালক হিসেবে তাই ভালোও লাগছে।’

পরিচালক জানান, শুটিংয়ে ভীষণভাবে সহযোগিতা করেছেন পূর্ণিমা। দিন পেরিয়ে মধ্যরাত পর্যন্ত তিনি আন্তরিকভাবে সময় দিয়েছেন। এ ছাড়া শুটিংয়ের আগে অ্যাকশন দৃশ্যের জন্য তিনি মহড়ায়ও অংশ নিয়েছেন। তাঁর আন্তরিকতায় আমিসহ পুরো ইউনিট মুগ্ধ।

প্রথমবার ওয়েব সিরিজে কাজ করা প্রসঙ্গে পূর্ণিমা বরেন, ‘এই পরিচালকের “ব্যাচেলর পয়েন্ট”সহ একাধিক কাজ দেখেছি। কাজের মাধ্যমে জনপ্রিয়তা পেয়েছেন। যখন “হোটেল রিলাক্স”-এর চরিত্রটিতে অভিনয়ের প্রস্তাব দিলেন, শুনে রাজি হয়েছি। মনে হয়েছে, অতিথি চরিত্র হলেও চরিত্রটি গুরুত্বপূর্ণ। তা ছাড়া এই প্রথম পুলিশ (ডিবি) চরিত্রে অভিনয়ের অভিজ্ঞতা হচ্ছে।’

পুরান ঢাকায় ওয়েব সিরিজ ‘হোটেল রিলাক্স’-এর শুটিং করছেন পরিচালক কাজল আরেফিন। মাসের শুরুতে শুটিং শুরু হয়ে, শেষ হচ্ছে আজ শুক্রবার। নির্মাতা জানান, এখন পর্যন্ত তাঁর ক্যারিয়ারের বেশ উপভোগ্য একটি কাজ হতে যাচ্ছে ‘হোটেল রিলাক্স’।

বঙ্গের প্রযোজনায় ‘হোটেল রিলাক্স’ প্রসঙ্গে পরিচালক আরও বলেন, ‘অবশ্যই কাজটি বিনোদনধর্মী। বর্তমানে নির্মিত বেশির ভাগ ওয়েব সিরিজই থ্রিলারধর্মী। ওয়েবের দর্শকেরা থ্রিলার গল্প দেখে দেখে অভ্যস্ত। আমি দর্শকদের ভরপুর বিনোদন দিতে চাই। আমাদের দর্শক নিয়মিত থ্রিলারসহ অনেক গল্পের ওয়েব সিরিজ দেখেছেন, তবে আমি যেটা বানাতে চাই, হয়তো এ ধরনের গল্প আগে দেখেননি।’