default-image

গ্রুপ ‘এফ’

শাখতার ১: ১ সেল্টিক

বোন্দারেঙ্কোর আত্মঘাতী গোলে নিজেদের মাঠে ১০ মিনিটেই পিছিয়ে পড়ে শাখতার। কিন্তু মিখাইলো মুদরিকের অসাধারণ এক গোলে ২৯ মিনিটেই সমতায় ফেরে তারা। শেষ পর্যন্ত সেল্টিকের সঙ্গে ১-১ গোলের সমতা নিয়ে মাঠ ছাড়ে ইউক্রেনিয়ান ক্লাবটি।

জেনে রাখা ভালো: চ্যাম্পিয়নস লিগে ৩৪টি অ্যাওয়ে ম্যাচে মাত্র ২টি জয় সেল্টিকের।

রিয়াল ২: ০ লাইপজিগ

৭৯ মিনিট পর্যন্ত কোনো গোল নেই। এরপর চোখধাঁধানো দুটি গোল। ৮০ মিনিটে ফেদেরিকো ভালভের্দে আর যোগ করা সময়ের প্রথম মিনিটে মার্কো আসেনসিও—এ দুজনের অসাধারণ দুটি গোলে লাইপজিগের বিপক্ষে ২-০ ব্যবধানের জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে চ্যাম্পিয়নস লিগের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ।

জেনে রাখা ভালো: এ মৌসুমে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৮ ম্যাচের সব কটিই জিতেছে রিয়াল মাদ্রিদ।

default-image
default-image

গ্রুপ ‘জি’

ম্যান সিটি ২: ১ ডর্টমুন্ড

এ ম্যাচের গল্পটাও অনেকটাই রিয়াল-লাইপজিগের মতো। ম্যানচেস্টার সিটির মাঠ ইতিহাদে ৫৬ মিনিটে এগিয়ে যায় বরুসিয়া ডর্টমুন্ড। কিছুতেই গোল পাচ্ছিল না ম্যান সিটি। অবশেষে পেপ গার্দিওলার দলকে কাঙ্ক্ষিত সেই গোল এনে দেন বরুসিয়ারই সাবেক স্ট্রাইকার আর্লিং হলান্ড। ৮০ মিনিটে তাঁর অসাধারণ গোলের ৪ মিনিট পর জোয়াও কানসেলোর গোল। ২-১ গোলের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ম্যান সিটি।

জেনে রাখা ভালো: ঘরের মাঠে চ্যাম্পিয়নস লিগে ২১ ম্যাচে অপরাজিত থাকার রেকর্ড ছুঁয়েছে ম্যান সিটি।

কোপেনহেগেন ০: ০ সেভিয়া

গ্রুপ ‘জি’তে এই ম্যাচ দিয়েই প্রথম পয়েন্ট পেয়েছে কোপেনহাগেন ও সেভিয়া। ম্যাচের শুরুতে স্পেনের দল সেভিয়া ছড়ি ঘোরালেও শেষ দিকে ভালো খেলেছে ডেনমার্কের কোপেনহাগেন। গোলশূন্য ড্র ম্যাচে দুই দলের রক্ষণই ছিল দারুণ জমাট।
জেনে রাখা ভালো: চ্যাম্পিয়নস লিগের গ্রুপ পর্বে সবশেষ চার ম্যাচে কোনো গোল খায়নি কোপেনহাগেন

default-image
default-image

গ্রুপ ‘এইচ’

জুভেন্টাস ১: ২ বেনফিকা

ম্যাচের ৪ মিনিটেই এগিয়ে যায় জুভেন্টাস। কিন্তু মিলিকের করা গোলটি ধরে রাখতে পারেনি তুরিনের দলটি। ৪৩ মিনিটে বেনফিকাকে সমতায় ফেরান জোয়াও মারিও। ৫৫ মিনিটে নেরেস কাম্পোসের গোলে এগিয়ে যায় তারা। এরপর আর গোল শোধ করতে পারেনি জুভেন্টাস। গ্রুপ পর্বে এই নিয়ে শুরুর দুই ম্যাচেই হারল ইতালির ক্লাবটি

জেনে রাখা ভালো: ১৯৯৭ সালের পর এই প্রথম ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতায় ইতালির মাটিতে জয় পেল বেনফিকা।

ম্যাকাবি হাইফা ১: ৩ পিএসজি

ইসরায়েলের স্যামি অফার স্টেডিয়ামে ২৪ মিনিটেই পিছিয়ে পড়ে পিএসজি। কিন্তু যে ম্যাচে লিওনেল মেসি, নেইমার, এমবাপ্পে—এই ত্রয়ী জ্বলে উঠবেন, সে ম্যাচে কি আর পিএসজি হারতে পারে! ৩৭ মিনিটে পিএসজিকে সমতায় ফেরান মেসি। এরপর দ্বিতীয়ার্ধে এমবাপ্পে ও নেইমারের গোলে ৩-১ ব্যবধানের জয় নিয়ে প্যারিসে ফিরেছে ক্রিস্তফ গালতিয়েরের দল।

জেনে রাখা ভালো: চ্যাম্পিয়নস লিগে টানা ১৮ মৌসুম গোল করা প্রথম খেলোয়াড় লিওনেল মেসি। করিম বেনজেমা টানা ১৭ মৌসুমে গোল করেছেন।

default-image
ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন